পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/১৮৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


×&) . পূরণী—জলদ তেতাল।। যতনে যে ধন সদা করে উপার্জন r কে কোথা দুঃখেতে ত্যজে, ন দেখি কখন ॥ অনেক যতনে ফণী, মণিরে পাইয়ে, শিরেতে ধারণ করে মনে নিরখিয়ে, বিহনে এমন ধন, বঁাচে কি জীবন ॥ ঝিঝিট—কাওয়ালী । কুমলিনী অধীনী তোমার শুন অলিরাজ । সদায় তোমারে, ভাবি হে অন্তরে, এই মোর কাজ । সদয় থাকহে নাথ, এই হয় মম মত, নিদয় কখন, হয়োনা হে প্রাণ, সুখেতে বিরাজ ॥ ব'ৰ্বোরা—ঠংবী । আগে তারে দিওনা রে মন । , পরে জানিবে—পর যে কেমন । সখি সে নহে আপন । সে শঠের শিরোমণি, আমি তরে ভাল জানি শঠের পিরীতি যেমন জলের লিখন । বাহাব-জলদ হুেতাল । বিরস ত্যজিয়ে ওলো, হরিষে হাসন। গলিত কেশ নীরদ, তাহর আড়েতে চাদ, লুকায়ে কেন বল না। ত্যজন বিষম বেশ, করহ স্বভাব বেশ । ঈষদ হাসিয়ে প্রিয়ে, অভিমান বিনাশিয়ে, প্রাণ সরসে মজ না । বেহাগ—জলদ-তেতাল। ! আমারে কি তার আছয়ে মনে । মনেতে করিত যদি, তবে কি মরিন্থে কঁদি, নিরখিয়ে থাকি পথপানে ॥ তাহারে না দেখে, প্রাণ যেমন করে, এ কথাকে বুঝিবে কহিব করে, কিবা রাত্রি নি, তার প্রতি মন, আমি যে কাতর সে কি জানে। y লাঙ্গালীর গান । ভৈববী-কাওয়ালী। আর কি প্রাণনাথ যাইতে পারে লো সখি। বান্ধিয়াছি প্রেমডেরে, রক্ষক তায় আঁখি ॥ হৃদি-সরোজ-ভিতরে, লুকায়ে রেখিছি তারে, বাহির কি করি আর, বুঝে দেখ দেখি ॥ "πά-Αnt μπω ωωω সিন্ধু-খাম্বাজ-আড়াঠেকা । কহিও সহ এই বিবরণ মোর, প্রাণনাথে । নয়নের বশ আমি, করি কি ইহাতে ॥ নয়নের বশ তুমি, নহ কদাচিতে। বশ হলে তবে কেন, হইবে কান্দিতে ॥ ওষ্ঠাগত প্রাণ হয়, তোমারে দেখিতে। গেলে কি হইবে ভাল, হয় কি মতেতে । বেহাগ—জলদতেতাল।। নয়ন প্রবোধ মানে কি প্রাণ, ন দেখে তোমাে f একেতো নয়ন, তাহাতে শ্রবণ, অমিয়ু বচন, চাহে শুনিবারে । রসন রসের আশ, পরশ চাহে পরশ, নাসিক স্বাস, সদা অভিলাষ, বলিলেম বিশেষ, বুঝন বিচারে। বেহাগ-জলদতেতালা । তুমি মোরে ভুলিলে ভ্রমরা রে fক রসে মঞ্জিয়ে । বিরহ আগুণ, দিয়ে এই ধন, রয়েছে প্রাণ প্রবেধিয়ে ॥ নানা ফুলবনে ভ্রম, সকলের সনে প্রেম, নলিনী নীরেতে, তাহারে দেখিতে, কদাচ মনে নাহি হয়ে ॥ o বেহাগ টিমেতেতাল।। আমি কি তোমার কেনা কেনা। এই জনরব, ঘরে ঘরে সব, করিছে কে না। এ রবে নীরব আমি মনে বুঝে দেখ তুমি, তুমি যদি জান কেন, আমার নাহি ভাবন, বলিছে কি না।