পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/১৯৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নিধুবাবু। ভৈরবী—কাওয়ালী। মনের যে আশা যদি তাহ না পূরিত। তবে কি পরাণ কেহ রাখিতে পারিত ॥ দেখ না চাতকী ঘন, দিবানিশি করে ধ্যান, বারিদনে তোষে তারে, না রাখে তৃষিত। তার সাক্ষী প্রদীপ পতঙ্গ আশ্রিত, হইয়ে আগেতে দেখ হয় প্রজ্বলিত ॥ তার আশা পূৰ্বাইতে পতঙ্গ পুলকচিতে, আপনি জলয়ে তাতে, রাখিতে পিরীত ॥ গুর্জরী টোড়ী—জলদ তেতাল।। তোমার নয়ন রক্ষক আমার ও মৃগনয়নি। মুগের গমন দ্রুত, আমি পলাইব কত, পথ না পাই ধনি ৷ তাহার সহিত হাসি, দেখ আর কেশ ফ্রঁসি, শ্ৰবণেরে তব আঁখি কহে কি না জানি। আমি হইয়াছি ভীত, ভরসা বচনামৃত, রচিবার হেতু জানি। कशिां दृ1-ङtण शब्रेि । প্রবল প্রতাপে বুঝি প্রাণ, তুমি কি ভূপতি হৈলে আমার আশারে তুমি অনাসে বাৰিলে। আশ{ উদ্ধারিতে মন, গেল হে তব সদন, সেইপথ হৈল সেও, তারে কি করিলে। লাজভয় শাস্তমতি, বিরহ প্রবল অতি, ইহারে দমন কর, রাজা যে বললে। সোহিণী-জলদ তোলা। মন চঞ্চল হলে সাধিলে কি হবে । দিনে ছায়াবাজী কেন দেখিতে পাইবে। মন আপনার, তারে বশ কর, মনোবশ না হইলে, বশ কে হইবে। ঋিঝিট-জলদ ভেতালা । উদয় ভূতলে এৰি অপরূপ শশী । মুধ ক্ষরিতেছে মুখে মৃত্যুহ হাসি ॥ শশধর শোভ করে নিশিতে প্রকাশি। ইহার কিরণ দেখ, সম দিবানিশি৷ Yo a स्रोiढ़ांनी-बॉप्लांt?क । অনেকেরে আশ্রয় দিয়াছ মৃগনয়নি। রাহুভয়ে মুখে শশী, ভালে দিনমণি। আবার ভয়ে ভীত হয়ে ফণী, কেশে এসে হল বেণী ॥ ৰাগেই-কাওয়ালী। রাত্রিদিন একত্র প্রকাশ দেখ রাত্রিদিন। কেশেরে বুঝহ নিশি, বদন অরুণ ॥ তপন মুখ বলিতে, সন্দেহ নাহিক ইথে, ‘ হেরিয়ে হৃদিকমল, প্রকাশে তখন ॥ কামিনীর মনমুখ, নিশিতে হয় অধিক, কেশেরে তাই অধিক, করয়ে যতন ॥ भांजट्रकष-त्रांढ़ांt#क । নয়ন মন ডুবিল প্রাণ, নয়নে তোমার। ত্ৰিবেণী-নয়ন বেগ অতি ঘন বহে ভিন ধার। পলক পবন বয়, যমুনা প্রবল হয়, প্ৰলয় যেমন, তরঙ্গ তেমন, আপার পাখার ॥ টোটী-জলঙ্গ তেতালা। . ধীরে ধীরে যায় দেখ, চায় ফিরে ফিরে । কেমনে আমারে বল যাইতে স্বরে। যে ছিল অস্তরে মোর, বহে দেখি তারে। নয়ন অন্তর হলে, পুন চায় অস্তরে। টোটী-জলঙ্গ তেতালা। এমন চুরি চক্রাননি শিখিলে কোথায়। হানিয়ে নয়ন-বাণ, হরিয়ে লইলে প্রাণ, কথায় কথায় ॥ মনেরে বান্ধিল কেশ, তুমি মৃদু মৃদু হাস, ইথে কি উপায়। (फ़ाइब्र नारिक उछ, जापूछन उँौ७ श्छ, বিচার হে চায় ॥ ইমন ভূপালী-আড়ানো। প্রাণ যেমন করে কহিব করে কে কবে তারে । দিবে নিশি ভাসি আমি নঘন-নীরে।