পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/২১২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


, 'Re দ্বিতীয়ের চাদ কিঞ্চিৎ প্রকাশ । তৃতীয়ের চাদ, জগতে দেখে ॥ मङ्ख्यौं । سيد ধেীবনকালে যদি নারী বুঝিতে পরীত। তমোগুণে না হইত পূরিত। চিতেন । পুরুষেরে হইত বাধিত । তবে ত হইত প্রেমে মুখ সমুচিত । তা স্তরা । সময়ে প্রেমেরো নাহি করে আকিঞ্চন । করয়ে কখন—যায় যৌবনে যখন ॥ চিতেন । সে প্রণয়ে হয়ে কি না—নানা বিঘটিত ॥ मइ झुंो । কি হবে । কোথা গেলে হরি, অনাথো করি, তেজিয়ে পথ মাঝে । তবে বিরহে সৃদয় বিদরে ধে । আমি একাকী এ বনে, রহিব কেমনে, মরি মরি প্রাণে ধে । চিতেন । হাঃ ! এই স্বন্ধে করি, আমারে মুরারি, লইতে চাহিলে হে যে । আবার কি ভাবাস্তরে, অদেখ আমারে, হোলে কি মনে বুঝে ॥ হায়! ওহে তরুগণে, মোরো শ্রাম-ধনে, দেখেছ কেহ তোমরা। বিড়ম্বিলে বিধি, সে প্রাণনিধি, এই খানে হেয়েছি হার ॥ भश्झ1 ।। এত দুখে অপমান, সাধেরে পিরীতে প্রাণ। নিতি নিতি প্রাণে, নতনে আগুনে, উঠে না হয়ে নিৰ্ব্বাণ । চিতেন । অতি সমদরে, জুড়াবারে তরে কোরেছিলাম পিরীতি । বাঙ্গালীর গান । আমার সে সকলো গেলে, শেষে এই হলে, সদা ঝোরে দুনয়ন ॥ m* * *=* * ** মহডা । এ সময় সখা দেখা দেও হে | তব আদর্শনে ব্রজনাথ, আমার আঁখি মনো সদা দহে হে । হরি তোমার বিচ্ছেদে প্রাণ যায়, হায় হায় হয় হে ॥ চিতেন । গিরীষ্ম, বরষা, হিম, শিশিরে, যত দুখ দেয় হে। সব সম্বরণ কোরেছি কৃষ্ণ, বসন্ত যাতনা প্রাণে নাসয় হে | অন্তর) । প্রায় ব্যাধ-জাল হোয়ে, বেরেছে আমায়ু, কোকিলের সর-জল । তাহে পোড়ে আমি, হরিণী সমান, ডাকি হে তোমারে নন্দলাল ॥ vবচিতেন । জীবনে যৌবনে, ধনে প্রাণে হুরি, সপেছি সব তোমারে হে । বিপন্তে মধুসূদনে, আমা প্রতি কেনে, নিদয়ো জনাৰ্দ্দন হে । भश्फु|} অয় দোসরী, বনে গিয়ে হেরি, সেই বংশীধারী, বৃন্দে সখীর করে ধরি করে সবিনয়। যেমন আছিস্ তেমনি আয় গো, আর বিলম্ব নাহি সয় ॥ চিতেন । মুক্তকেশী হেয়ে আসি গৃহবাহিরে। সজলনয়নে সাধে সবারে ॥ অন্তরা । ব্যথার ব্যর্থী কে আছিস আমার এস গে৷ এ সময় |