পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/২২১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দেওয়ান মহাশয় মুরট—তেতাল।। ময়ি পামরঞ্জনে নিজগুণে তারিণি উদ্ধার ॥ প্রমার্থী চঞ্চল চিত, নিয়ত ফেরে কুপথ, সঞ্চয় করে পাপ-সস্তার ॥ জর জনম মরণ, দেখিয়া যে প্রতিদিন, তথাপি স্থিরতাভাণ, মনে যে আমার। অতিভ্রান্ত অকিঞ্চনে, দুর্গে তব কুপা বিনে ন হইবে ভবেতে নিস্তার। দেশ–ঠ বী। করূপ অনুপমা, নীলাজ-বরণী গুম।। নগ্ন সমরে মগ্ন, স্ত্রীশুষ্ঠা করি বাম৷ ব্যাপ্তানন ত্ৰিনয়ন, বিলোল বসন ভীম, বিনাশি দৈত্যগণ, অমরে কর সিদ্ধকমা ॥ কালরূপ কাল কামিনী, কে জানিবে মহিমা , কাল ভয়ে অকিঞ্চনে সকরুণে নিস্তার উমা ॥ বাগশ্ৰী-এক তাল । জলদ-বরণী কেরে !—এ কে রে ? বামা খন হুহুঙ্কারে দনুজসংহারে । বাম করম্বয়, শব শিব ভয়, শশী খণ্ড ভালে, রিপুম্‌গুমালে বিশাল রূপ ধরে। । কে রে লোল-রসন, বিকট দশন, * রুধিরাশনে নিযুতবাসন, ববসনা অতি ভীষণ ভয়ে তনু শিহুরে ;– অকিঞ্চন এই কহে ব্ৰহ্মময়ী জয়ী হয়ে সমরে ; ; প্রসন্ন হইয়ে কৃপা বিতরিয়ে বস মম অন্তরে। আড়ানা বাহার—আড়াঠেকা । গিরিশ-গৃহিণী গৌরী গিরিনন্দিনী। গণপতি-জননী গীৰ্ব্বাণগণ পলিনী ॥ বিমল বদনী উমে, বিশাল নয়নী ধূমে, বিবুধ ব৯দা বিশ্বজনবন্দিনী । সতী প্রজাপতিকস্তা, সৰ্ব্বস্বরূপিণী ধন্ত, সদা সদাশিবমন্তি সুখশালিনী । অপর্ণা অপরাজিত, অন্নদা অম্বিক সীতা, অনাথ অকিঞ্চন শেষাঘবারিণী ॥ வாகன ) సె ভৈরব-কাওয়াণী । সিংহোপরি বিকশিত পদ্মাসনে, জগদ্ধাত্রী দুর্গে বিহরে। চরণকমলে প্রতিদলে, শশী নখ ছলে, হেরিয়ে ভুলে মধুপ চকোরে। পরিণত বিধুশত-নিন্দিত বদনী, বিচিত্র বসন কিবা উরগপরিধিনী, কুচুমরচিত চঞ্চল চিকুর বেণী, দোলনে স্মরহর-মন হরে । বিবিধ রতন ভূষণে চতুৰ্ভুজ সজে, খুড়ঘুর শপুর পদে কি মধুর বাজে, প্রসন্ন হইয়ে গে৷ গিরিজা, এই রূপে কর স্থিতি অকিঞ্চন হৃদয়-মঞ্চারে। সাবঙ্গ—চোঁতাল । এম বিশ্বেশ-বিমোহিনী, বিশ্বজনবন্দিনী, বিমল-বদনী বিন্ধ্যবিলাসিনী। প্রপন্ন-প্রতিপালিনী, পাৰ্ব্বতী পরমেশনী, পতিতপাবনী পশুপতিরাণী, পৰ্ব্বত-রাজনন্দিনী । ভবার্ণব নিস্তারিণী, ভকত-ভয়ভঞ্জনী, ভৈরবী-ভবানী ভূতলবাসিনী, ভুবনব্যাপিনী। মহিষাসুরমর্দিনী, মহেশ-মনোমোহিনী। মনুজমস্তকমালধারিণী, অকিঞ্চন-হৃদিমাঝ-বিহারিণী ॥ মুলতান—একতাল।। প্রার্থন এই মা তব অভয়-পদকমলে কf । আর মায়াবসে মুগ্ধ রাখি ৰাতন না দিও শঙ্করী। কাল বশে কাল বিফলেতে গেলে, ঐ যে নিকটে আইল গে কাল, মম ক্রিয় বল, বিদিত সকল, কি বলে বল ওরি, মুখ অভিলাষ, দুঃখ সুপ্রকাশ, তথাচ না হয় মন ভ্রমনাশ, অজ্ঞান বিষ সেবনেতে ৰত্ন পীযুষ পরিহরি। প্রসন্না হয়ে ভগৰতি, দেহি সুবিমল মতি মাম্প্রতি, অকিঞ্চন লয়কালে যেন মুখে বলে হরি হরি ॥