পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৪০৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 נ (ס\ লহু মম আঁখি মন, লোকন-বোধ কারণ, অখনি আপনি ল'বে, আপন প্রেম-আশ্রয় ॥ __. দেশী—আড়াতেতালা । দেখ প্রাণনাথ, পলক বাদ সাধে। নহিলে নয়ন ভরি দেখিতাম মনের সাধে । একে তব রূপ-দীনে, তুষিতে নারি নয়নে, তাহাতে ব্যাঘাত আর, না জানি কি অপরাধে ॥ _து সোহিণী—আড়াতেতাল।। বেগে আসিতেছে মদন সই, নহে বসন্ত কখন । তার পাছে পাছে রতি কহিছে বিনয়ে, না বধ না বধ জীবন ॥ নৃপুরের ঝনঝনি ভ্রমর-ঝঙ্কারে, গর্জনে বিনয়ে দুয়ে কোকিল-ভঙ্কারে, আমোদিত করিয়াছে অঙ্গের সৌরভে, কোথা মলয়ের পবন ॥ অতিশয় প্রভান্বিত করি দরশন, শশী বলিছে, সখি, তা নহে কখন, উৰ্দ্ধ করি আনতেছে সুশাণিত আসি, আমাকে করিতে ছেদন ॥ लग्नट्रॅ1-6ङ७ ।। শশীর সহিত অরুণ,-প্রাণ, হইল উদয় । মুখ মুধাকর তব,—প্রাণ, রবি ছবি আঁখিন্ধয়। মম হৃদয়-কমল, কোন ভাবে থাকে বল, কেমনে মুদ্রিত রয়, কিসে বা প্রফুল্ল হয়। বুঝি আমার মন, এই কালে নিরূপণ, নিশিদিশি এক-ময় কালরূপী এ সমধু ॥ काफ़ि । শশীকে দিয়াছি রবি—যেন মুকুতার হার। হেরি চকোরের হৃদি—হুতেছে বিদার ॥ মান-তপন-প্রতাপে, কোপ-হুতাশন তাপে, বিন্দু বিন্দু স্বামিয়াছে—বদন তোমার ॥ বিভাস—অtড়াতে ভাল । চাদে সে বিপরীত, যা তোমার মুললিত। তাহার তুলনা কেন, ওলো বিনোদিনি দিব তোমার সহিত ॥ বাঙ্গালীর গান । 曾 তাতে যে কুবঙ্গ-অঙ্ক, সে তো কেবলি কলঙ্ক, তব নয়ন-হিল্লোলে মৃগ চিহ্ন শোভিত ॥ হইলে তার উদয়, কমল মুদিত হয়, তোমার উদয়ে সৃদয়-কমল বিকশিত ॥ যামিনীতে জ্যোতি তার, তাহে হ্রাস-বৃদ্ধি সার, তব জ্যোতি এক সম—দিবা নিশি স্থগিত ॥ ங்_. গৌরী—আহ্বাঙেতালা। প্রেম নামে আছে এক পুরী মনোহর,— প্রাণ !—সে অতি সুখকর। দ্বার—ফুল-শরাসন, ফুল-শরে আবৰ্ত্তন, দ্বারী তার পঞ্চশর ॥ কোকিল ভ্রমর শিখ চকোর চাতক, নীরদ কুমুম শশী এ পরিচারক, প্রাণ । বিচ্ছেদ বিষাদ বাদ, মান মৌন মুবিবাদ, এ সকল শোভাকর ॥ মনের নিকটাবধি আর সে পুরীতে, মিলনে মিলনপথ-পাইবে দেখিতে প্রণ। হেনপুরী মনোলোভ, তবে হয় তার শোভা, তুমি যদি বাস কর । পূরবী—অস্থিাতেতালা । কটাক্ষে মরি ওলে, কটাক্ষে ওরি আমি তোমার এ অঁাগি যেমন, না দেখি এমন, কখনে, কার ॥ বিষদৃষ্ট্রে একবার, জীবন কর সংহার, আর বার চাও, সুধায় বচাও, সে অনিবার ॥ মরণ জীবনমার, বল তব বাসনার, যেন প্রাণ থাকে, কি কব তোমাকে অধিক আর । গৌরী—অাড়াওতালা । প্রেম-সিন্ধু-মথনেতে, এই উপার্জন প্রাণ, কি কেবলি যাতন ! মন্দর মনে আমার, অনন্ত গুণ তোমার, মদনের আকর্ষণ ॥ উঠিল কলঙ্ক-শণী গঞ্জনা-মাতঙ্গ, উঠে লোক-লজৌষধি চমকতুরঙ্গ প্রাণ। চিন্তারূপ পাৰ্বিজাত, উঠে দুঃখ-শাখা-সাথ, কোথা করিব রোপণ ॥