পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৪৯৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8০২ (এখন) দারা পুত্র, জ্ঞাতি গোত্র, সকলে শুনছে হুকুম্ ; শিবনেত্র হবামাত্র, আপনি হবি রে নিঝুম্ ॥ রবিমুতের দূতে ধ’রলে, হবে রে মজা মালুম্, কুমিল্লাহ্রদে, দেবেগেদে, বিপদে দিয়ে তুডুম্ ॥ সুর ব্রহ্ম, না জেনে মৰ্ম্ম, সাধ বসে তনুম্ তুম্ ; রাগেতে তোর, নাই অনুরাগ, কে শোনে তোর বিবিটি লুম্ ॥ কপট ভক্তির, বিষম জ্যোতি, বহেড়ম্বর বড়ই ধূম ; খগ ভণে, সাধন বিনে, দেহু-গেহ শ্মশানভূম | জংলা গোঁড়--একতালা । মানুষ চলে, কলের বলে। পঞ্চভূত, বড়ই মজবুত, বেরেছে সহস্ৰদলে ॥ (ওরে ভাই ) এই দেহ মেসিন, ইহা ভাই বড়ই প্রবীণ, ইংরাজ চীন ফ্রেঞ্চ মারকিণ,সবাই হার মানিলে ; মরি কি শিল্পবিদ্যা, করেছেন মহাবিদ্যা, যোগারাধ্যে পায় না বুদ্ধে, অসাধ্য হয় ভাবতে গেলে ॥ এ কলের কি কৌশল, কল থেকে জন্মাচ্চে কল, রেলওয়ে ইষ্টিম ভেসল, লোক-সাহায্যে চলে ; টেলিফণ, ফণোগ্রাপ, ইলেক্‌টিক টেলিগ্রাপ, মানুষ কল সব কলের বাপ, চৈতন্য রয়েছে মূলে ॥ কলটী সাড়ে তিম হাত, এতে হয় ত্ৰিজগং মাৎ, মন পবন বচে দিন রাত, জঠর অনলে ; জীবাত্মা মহাপ্রাণী, এ কলের দুটো চিমি, ব্ৰহ্মা বিষ্ণু, শূলপাণি, নাড়ে নড়ে পল বিপলে। এই কল কি চমৎকার, নয় দিকে নট দ্বার, মণিকোটায় আছে একজন বসিয়ে বিরলে ; ছয় জন কুজন ধরে, কলেরে বিকল করে, জীরুপ কর সরতে পারে, গুরুমন্ত্র যন্ত্র পেলে । বাঙ্গালীর গান । খাম্বাজ-একত্তালা । ভগ্ন খাচায়, বিরক্ত হয়, প্রাণপাখি । মাচার খুঁটী, হ’লো মাটি, ক্রমে বক্র হয় দেখি ॥ (দেখ দেখি ) সাড়ে তিনটী হাত, হচ্চে ক্রমে কাত, উড়বে পাখি,দিয়ে ফাকি, বাঞ্জি করে মাত ; হ’লো খাচা জীর্ণ, ছিন্ন ভিন্ন, শব প্রায় হায় সব দেখি। . ধন্ত শিল্পকার, করলে খাচার নট দ্বার, কলকৌশলেতে বানালে, গঠন পরিস্কার ; পাদপদ্ম, নাভিপদ্ম, হৃদিপদ্মের নাই বাকি ৷ এই খাচার যে কাণ্ড, কি জানবে পাষণ্ড, খাচার ভিতর পরাৎপরের ক্ষুদ্র ব্রহ্মাণ্ড ; এতে খুঁজে নিলে, সকল মেলে, সহস্রদল নিরখি ॥ তিনটী খাচার তার, বেড়া নব দ্বার, হেলে দোলে, পল বিপলে, থামূলে অন্ধকার ; কহে খগপতে, পাচ-ভুতেতে, আছে ইথে ভাবচ কি ৷ জঙ্গ এ মুলতান—একতাল । হরির লুটের গুণ জান না। বেদেতে লেখেন বিধি,ভব ভয়ের ভয় থাকে না ৷ থেকে যে স্থতিকাগারে, যে শ্রীহরি স্মরণ করে, ঝল মসলা খেতে তারে, হরি ভক্তের মান ; ভোগে না কোন পাপ, বেদনা শোক তাপ, বালকে মারে লাফ, পোওয়াতির পোরে কামনা পোওয়াতির কঁাচনাড়ী, বলে সকল আনাড়ী, খরচ নয় অধিক কড়ি, সওয়া পাচট আনা। বালকে কোলে রেখে, পাস্তা ভাত খাওগে সুখে, মগরের ছেলে ডেকে,হরি নামের দেও ঘোষণা ॥ পড়ে বিষম শঙ্কটে, যে মানে হরির লুটে, সব বিপদ কেটে ওtট, জোটে সুমন্ত্রণা। দেওয়ানি ফৌজদারি, অপবাদ জোয়াচুরি, সব রক্ষা করেন হুরি, হরিংবাড়ীর হরগইন ॥ রোগেতে জীর্ণ করে, কবিরাজ পলায় ডরে, ডাক্তারে হেরে তারে, ভয়ে পাশ ঘেসে না। | স্ত্রীরূপদাসেতে ভণে, হরির লুট যদি মনে, নাড়ী আসে স্বস্থানে, শমনে ছুঁতে পারে না।