পাতা:বুয়র ইতিহাস - প্রিয়নাথ মুখোপাধ্যায়.pdf/২৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।

তৃতীয় পরিচ্ছেদ।

১৯

আফ্রিকার মুসলমানগণ এখন পর্যন্ত ঐ স্থানকে তাহাদিগের একটা তীর্থস্থান বলিয়া মানিয়া থাকে।

 এইরূপে দক্ষিণ আফ্রিকায় যখন উপনিবেশ সংস্থাপিত হইতেছিল, তাহার মধ্যে অর্থাৎ ১৬৫৯ খৃষ্টাব্দে ঐ প্রদেশের হটেণ্টট্‌ জাতির সহিত শ্বেতাঙ্গদিগের একটু মনোমালিন্য ঘটে, এবং সেই সূত্রে শ্বেতাদিগের সহিত দুইটী ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র যুদ্ধও হইয়া যায়, এই উভয় যুদ্ধেই ৬।৭ জন করিয়া হত ও কতকগুলি করিয়া আহত হয়।

 যেস্থানে ডচ্‌গণ সেই ক্ষুদ্র দুর্গটী নির্ম্মাণ করিয়াছিলেন, তাহার সন্নিকটে কিয়ৎপরিমাণ জমি ডচ্‌দিগের গোচারণের নিমিত্ত পতিত রাখা হয়। হটেণ্টট্‌গণ নিয়মিতরূপে ঐ স্থানে পশ্বাদি বিক্রয় করিতে আসায়, তাহাদিগের কয়েকটা পশু সেই গোচারণ ক্ষেত্রে চরিতে থাকে। ইহাতে ডচ্‌গণ প্রতিষেধ করায়, হটেণ্টট্‌গণ কহে,—“যেস্থানে চিরকাল আমাদিগের পশু সকল চরিয়া আসিতেছে, আমরা সেইস্থান পরিত্যাগ করিব কেন?” ইহা লইয়া উভয় দলের মধ্যে বিবাদ উপস্থিত হয়, পরিশেষে হটেণ্টট্‌গণ একজন শ্বেতাঙ্গকে সেইস্থানে হত করে। ইহাই ঐ ক্ষুদ্র যুদ্ধের কারণ। এই যুদ্ধের পর কিছুদিবস আর হটেণ্টট্‌গণ সেইস্থানে পশু বিক্রয় করিতে, আগমন করিত না; কিন্তু পরিশেষে উভয় জাতির মধ্যে একরূপ সন্ধিপত্র লিখিত হয়, ও সেই সময় হইতে তাহারা পূর্ব্বের ন্যায় সেইস্থানে যাতায়াত আরম্ভ করে।

 এইরূপে দশ বৎসর কাল ভেন রিবিক্‌ (Mr. Van Riebeek) দক্ষিণ আফ্রিকার বন্দোবস্ত করিবার পর আরও