পাতা:বুয়র ইতিহাস - প্রিয়নাথ মুখোপাধ্যায়.pdf/২৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।

২৬৮

ইংরাজ-বুমর যুদ্ধ।

সর্বস্থানে গমন করিয়া সময় উপযোগী আদেশ সকল প্রদান করিতে লাগিলেন। |

 আহতগণকে দেখিবার নিমিত্ত যে সময় সেনাপতি পাহাডের ধারে গমন করেন, সেই সময় একজন কর্মচারী ১২০০ শত হাত দূরবর্তী দুইজন বুয়রকে দেখিতে পাইয়া, যেমন তাহার দৃষ্টি আকর্ষণ করিলেন, অমনি একটী গুলি আসিয়া নাবিকসৈন্তের সেনাপতি রমিলীকে সাংঘাতিকরূপে আহত করিল। |

 ক্রমে ১১||● টা বাজিয়া গেল; সেই সময় হঠাৎ পাহাড়ের একপা হইতে বন্দুকের ভয়ানক আওয়াজ ঊখিত হইতে লাগিল। ইহাতে সকলেই মনে করিলেন, ঐ দিকের বুয়রগণ বিশেষ অগ্রবর্তী হইয়া পড়িয়াছেন। সেই সময় সেই দিকে কেবল ১৫ কি ১৬ জনমাত্র হাইল্যাণ্ডার সৈন্ত ছিলেন। তাঁহাদিগের সাহায্যার্থ আর কতকগুলি সৈন্ত সেইস্থানে উপস্থিত হইয়া, দেখিতে দেখিতে বুরদিগের বন্দুক নিস্তব্ধ করিয়া ফেলিলেন। সেই সময় আর একদিক হইতে প্রবল তেজে গুলি সকল আসিতে লাগিল। বুয়রদিগের অবস্থা দেখিয়া, স্পষ্টই প্রতীয়মান হইতে লাগিল যে, তাঁহাদিগের একদল যখন একদি হইতে ভয়ানক গুলি নিক্ষেপ আরম্ভ করেন, সেই সময় অপর দিক হইতে অপর দল জমেই উর্কে উঠিতে থাকেন; আবার তাঁহারা যখন গুলি নিক্ষেপ আরম্ভ করেন; তখন অপর একদল অপর আর একস্থান দিয়া উঠিতে আরম্ভ করেন।

 এইরূপে সেই অত্যুচ্চ পাহাড়ের উপর প্রতম প্রভৃতির অন্তরালে শয়ন করিয়া, গুলিবর্ষণ করিতে করিতে ক্রমেই প্রায় ২০০ শত কুয়রু পাহাড় আরোহণ করিতে আরম্ভ করিলেন।