প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:বৈকালী-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/১১৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


এসে এসো প্রাণের উৎসবে, > দক্ষিণবায়ুর বেণুরবে, २ পাখির প্রভাতী গানে এসে এসে পুণ্যস্বানে \O আলোকের অমৃতনিবারে ॥ 8 এসে এসে তুমি উদাসীন। 6. এসে এসে তুমি দিশাহীন। وخ প্রিয়েরে বরিতে হবে, বরমাল্য আনে। তবে— * দক্ষিণা দক্ষিণ তব করে ॥ Եদুঃখ আছে অপেক্ষিয় দ্বারে— Q বীর, তুমি বক্ষে লহে৷ তারে। У о পথের কণ্টক দলি এসে চলি, এসো চলি X > ঝটিকার মেঘমন্দ্র স্বরে। > ૨ কবিতার সপ্তম অষ্টম ও নবম স্তবকই যথাক্রমে এই গানে প্রথম দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্তবক। গানের প্রথম ছত্রে ‘প্রাণের’, কবিতায় অনুরূপ স্থলে : মাটির / গানের পঞ্চম ও ষষ্ঠ উভয় ছত্রের সূচনাতেই ‘এসো’ কিন্তু কবিতায় : ফিরে / গানের দশম ছত্রে ‘বক্ষে লহো হইলেও কবিতায় অনুরূপ স্থলে : বরি’ লহে / এই কবিতার আধারে রবীন্দ্রনাথ একটি স্বাক্ষর-কবিতা লিখিয়া দেন শ্ৰীশ্ৰীপতি বসুকে ; উত্তরকালে আনন্দবাজার পত্রিকায় ( রবিবার। ২৪ বৈশাখ ১৩৬৮) ও ১৩৭১ সনের ২৫ বৈশাখ উংসবপত্রে (বিশ্বভারতী ) ইহার লিপিচিত্র প্রকাশিত : স্বাক্ষর-কবিতা কোথা যাবে সে কি জানা নেই ? } শ্ৰেথা আছ ঘর সেখানেই । আঙিনায় জাক আল্লিপন আঁখি তব চেয়ে দেখিল না। মিলন ঘরের বাতি - জলে আমলিন ভাতি o সারারাতি জানালার পরে । ) e } • 8