পাতা:ভ্রমর.pdf/১৪৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

ভণ্ঠ দৃশ্য] ভ্রমর ১৪১ মাধবী। সৰ্বনাশ হ’ল ! সংসারটা ছারে-বারে গেল! বড় ঘর দেখে, অনেক আশা ক’রে মেয়েটার বে দিয়েছিলুম, ভগবান হাড়ে হাড়ে শিক্ষা দিলেন। চল, আকৃষ্টে হবেই। আহা । এখন যা আছে মেয়েটাকে যেন ভাল অবস্থায় গিয়ে দেখি। নিশ। তুমি ভাবছ কেন হে? কোন দিক বে-পালট হবে না। তুমি চল । [ উভয়ের প্রস্থান। ( গোবিনালের প্রবেশ ) গোবি। চুপ! চুপ! কথাট নয়, সাড়াটি নয়, শবাট নয়। গাছেরও কাম আছে, গাছগুলো শুনতে পাবে, এখনি আমার কথা চারিদিকে রাষ্ট করে দেবে। আকাশের কান আছে আকাশও শুনতে পাবে। ; এখনি গিয়ে দেবতার কাছে বলবে । দেবতারা অমনি আমার মাথায় বজাঘাত করবে। চুপ! চুপ! আস্তে পা ফেল, গলার আওয়াজ যেন না মেশে। সেই হরিদ্রা গ্রাম, সেই পরিচিত পথ-ঘাট, সেই পরিচিত লোকজনের মুখ। আর আমি যা ছিলুম, তা নয়, সে গোবিন্দলাল নয়! আমি বেহা আমার সক্ত, শ্ৰীহত্যাকারীনরকেও অামার স্থান নেই! অমর! বাসের জত্যে স্বতন্ত্র নরক প্রস্তুত হচ্ছে! আমর ! আমি তো ভালবাসতে জানিই না, তবে তোমার ভালবাসা যদি যথার্থ হয়, তবে যেন তোমায় একবার দেখতে পাই। আমার পোড়া-যেন একবার তোমাকে দেখাতে পারি। । যাই~্যাই ; আর দেরী। করব না। কে যেন এটনে নিয়ে যাচ্ছে। মনের স্রোতের টান। বেশী হয় জানতুম, এ টান সে টানের চেয়েও বেশী। যাই—যাই ; [প্ৰস্থান। টানে ভেসে যাই-টানে ভেসে যাই।