প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:রূপান্তর-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/৭৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রঘুবংশ ॥ স্বচনা বাক্য আর অর্থ-সম সম্মিলিত শিবপার্বতীরে বাগৰ্থসিদ্ধির তরে বন্দনা করিনু নতশিরে ॥ ১ কোথা সূর্যবংশ, কোথা অল্পমতি আমার মতন— ভেলায় হস্তর সিন্ধু তরিবারে বৃথা আকিঞ্চন ॥ ২ বামন হাসায় লোক হাত বাড়াইয়া উচ্চ ডালে, মন্দ কবিযশ চায়— সেই দশা তাহারও কপালে ॥ ৩ কিম্বা পূর্ব পূর্ব কবি রচি গেলা যেথা বাক্যদ্বার, বজ্রবিদ্ধ মণি —মধ্যে সূত্রসম প্রবেশ আমার ॥ ৪ আজন্ম র্যাহারা শুদ্ধ, কর্ম র্যারা নিয়ে যান ফলে, সসাগররাজ্যেশ্বর, ধরা হতে স্বর্গে রথ চলে— যথাবিধি হোম যাগ, যথাকাম অতিথি অচিত, যথাকালে জাগরণ, অপরাধে দণ্ড যথোচিত— দানহেতু ধনার্জন, মিতভাষা সত্যের কারণ, যশ-আশে দিগ্বিজয়, পুত্র লাগি কলত্রবরণ— শৈশবে বিদ্যার চর্চা, যৌবনে বিষয়-অভিলাষ, বার্ধক্যে মুনির ব্রত, যোগবলে অস্তে দেহ-নাশ ॥ ৫-৮ এ হেন বংশের কীর্তি বর্ণিবারে নাহি বাক্যবল, অতুল সে গুণরাশি কর্ণে আসি করিল চঞ্চল ॥ ৯ পণ্ডিতে শুনিবে কথা ভালোমন্দ-বিচারে-নিপুণ— সোনা খাটি কিম্বা ঝুটা সে পরীক্ষা করিবে আগুন ॥ ১০ @@