পাতা:লক্ষণ সেন - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৭৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শোভা | ৭৩ « - ایما می تمام ۹۳ م» که در ۹ م. সময়ে সময়ে কৰ্ম্মবশে স্বর্গভ্রষ্ট হইয়৷ পৃথিবীতে আসিয়া কষ্টভোগ করিতে হয় । ইহঁকেও কি সেই কষ্ট-ভোগের জন্য মর্ত্যে অসিতে হইয়াছে ! কি ভীষণ পরীক্ষা !" শোভা ভাবিয়া কুল-কিনারা পাইল না। শোভা যত কথাই ভাবে, বন্দীর প্রতি যতই দোষারোপ করিতে যায় ; মনে পড়ে—বন্দীর রূপের কথা ; মনে পড়ে—তাহার তেজস্বিতার বিষয় ; মনে পড়ে—তাহার বীরত্বের পরিচয় । মহারাজ জয়সিংহের সমক্ষে বন্দী সমান উত্তর করিয়াছে । সেজন্য সে নিশ্চয়ই দণ্ডাই। কিন্তু সে কথা মনে করিতে গিয়াও শোভার মনে পড়িতে লাগিল,—“কি তেজস্বিতা –কি নির্ভীকতা ! কোন দূর দেশ হইতে একাকী আসিয়া, প্রবলপ্রতাপান্বিত নৃপতির সম্মুখে দাড়াইয়া, যে জন আপনার মর্যাদার গৰ্ব্ব দেখাইতে পারেন, তাহার সাহসিকতার কি তুলনা আছে ! অগণিত সশস্ত্র প্রহরী তাহাকে আক্রমণ করিতে গেল ; তিনি পদাঘাতে সকলকে বিতাড়িত করিলেন। এমন বীরত্ব কে কোথায় দেখিয়াছে ? –কে কবে শুনিয়াছে ? স্বয়ং সেনাপতি মহাশয় দারুণ অস্ত্রচালনা করিয়| বন্দীকে আহত করেন ; তার পর বন্দী প্রহfরগণের করায়ত্ত হয়। উপকথায় ও এমন বীরত্ব-কাহিনী শুনা যায় না। এমন বীরের প্রতি পিতা কেন প্রাণদণ্ডের আদেশ দিলেন ? এই বীরের বীরত্বের পুরস্কার-স্বরূপ পিতা কি ইহাকে মিথিলার সেনাপতি-পদে প্রতিষ্ঠিত করিতে পারিতেন না ? বন্দী আত্মরক্ষার জন্য চেষ্টা পাইয়াছেন। আয়ুরক্ষার জন্য চেষ্টা কি অপরাধ ? আর সেই অপরাধে কি প্রাণদণ্ড হইতে পারে ?"