প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (অষ্টম সম্ভার).djvu/১০৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য সংগ্ৰহ করিল, তাহার পর সময় কবিয়া সারদাচরণের সহিত সাক্ষাৎ করিল। এতদিন পৰ্যন্ত নিতৃতে তাহার দুটো কথা কহিবার সময় হইয়া উঠে নাই । আজ অনেকদিনের পরে দু’জনেই আপোষে দুটা কথা কহিতে চাহিল, তাই হাত ধরাধরি বরিয়া গঙ্গাতীরে একস্থানে আসিয়া উপবেশন করিল। উপবিষ্ট হইয়া সারদাচরণ বলিল, সদানন্দ, তোমার ছেলেবেলার কথা মনে পড়ে ? কতক কতক পড়ে বৈ কি । মনে পড়ে যখন আমি একজনকে বড় ভালবাসতাম, যখন দিবারাত্রি কেবল ঐকথাই ভাবতাম, তোমার কাছে কত আশা, কত কল্পনা, কত কি বলতাম, অভিমান হলে কত কাদতাম, আর তুমি হেসে উড়িয়ে দিতে—ন হয় বিদ্রপ করতে, সে সব কথা তোমার মনে পড়ে সদানন্দ ? তা আর পড়ে না ? সে ত সেদিনকার কথা, বোধ হয় সাত-আট বৎসরের অধিক হবে না—কিন্তু বিদ্রুপ ত কখন করি নাই । আমার বোধ হ’ত যেন বিদ্রুপ করতে । যা হোক, তার পর যেদিন সে আমার সব আশা ধূলিসাৎ করে দিল, অভিমানভরে দু'জনেই কথা বন্ধ করে চিরবিদায় নিলাম ; সেদিন কত রাত্রি পর্য্যন্ত তোমার কাছে বসে কাদলাম, সে-কথা তোমার মনে আছে ভাই ? আছে । সদানন্দ কিছু অন্যমনস্ক হইল। সারদা কিন্তু তাহা লক্ষ্য না করিয়া অদূরে অঙ্গুলিনির্দেশ করিয়া কহিল, ঐখানে সে মরেচে। সদানন্দ সে-কথা শুনিতে পাইল না, আপন-মনে গঙ্গায় একখান নৌকা সাদা পালভরে উড়িয়া যাইতেছিল, তাহার পানে চাহিয়া রহিল । সারদা আবার বলিল, ঐখানে ললনা ডুবে মরেচে। এবার সদানন্দ মুখ ফিরাইয়া বলিল, কোনখানে ? ঐখানে । কেমন করে জানলে ? ঐখানে তার পরিহিত বস্ত্র পাওয়া গিয়েছিল । সদানন্দ উঠিয়া দাড়াইয়া বলিল, তবে চল, কাপড়খানা একবার দেখে আসি । সারদা অল্প হাসিল ; বলিল, কাপড়খানা কি এখানে আছে ? তবে চল স্থানটা দেখে আসি । দু'জনে তখন সেইখানে গিয়া দাড়াইল । সদানন্দ জল লইয়া চোখ-মুখ ধুইল, তাহার পর পুনৰ্ব্বার যথাস্থানে আসিয়া উপবেশন করিল। Ξύθώ