প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (অষ্টম সম্ভার).djvu/৩০৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পথ-নি৷ে সেইদিন অপরাহবেলায় ছেলেকে খাবার দিয়া মা কাজে বলিয়া আর দুইখানা লুটি খাইবার জন্য পীড়াপীড়ি করিতেছেন। তাহার পাশ দিয়াই তেতলায় উঠবার দিড়ি । অপরিচিত হেমকে দেখিয়া বিস্থিত হইয়া মালী প্রশ্ন করিলেন, তুমি কে গো दाझा ? আমি বিদেশী, বলিয়া হেম উপরে উঠিয়া গেল। অভয় তাহার রূপের দিকে নেকড়ে বাঘের মত চাহিয়া রহিল । হেম গুণীর ঘরে গিয়া দেখিল, সে দেয়ালের দিকে মুখ করিয়া শুইধা আছে । জাগিয়া আছে কি ঘুমাইতেছে, বোঝা গেল না। শিয়রের কাছে চাবির গোছাটা পড়িয়াছিল, হেম সেটাকে সৰ্ব্বাগ্রে আঁচলে বাধিয়া ফেলিল। একটা টেবিলের উপর গোটা-দুই খালি ঔষধের শিশি ছিল, তুলিয়া লইয়া দেখিল, লেবেলের গায়ে পনেরদিন পূর্বের তারিখ দেওয়া আছে। সমস্ত ব্যাপারটা সে স্পষ্ট বুঝিল । তার পর লোহার গিন্দুক খুলিয়া চেক বই বাহির করিয়া যখন ব্যবহৃত অংশগুলি পরীক্ষা করিয়া গুণীর দস্তখত মিলাইয়া দেখিতেছিল, এমন সময় মাসী ঘরে ঢুকিয়া একেবারে অবাক হইয়া গেলেন। চেচাইয়া বলিলেন, কে গা তুমি সিন্দুক খুলেছ ? হেম কহিল, চেচাও কেন, উনি উঠে পড়বেন যে ! মাদী আরও চেঁচাইয়া উঠিয়া বলিলেন, চেঁচাই কেন ? গুণী জাগিয়াছিল, পাশ ফিরিঙ্গ। হেম বলিল, আমি খুলব না ত কে খুলবে ? তুমি ? গুণী চাহিয়া দেখিতেছিল, দুইজনের কেহই তাহা লক্ষ্য করে নাই ; মাসী ভয়ানক উত্তেজিত হইয়া উঠিলেন। গুণী আস্তে আস্তে কহিল, হেম, কখন এলে ভাই ? এই আসছি। ওঁকে বুঝিয়ে দাও—তোমার জিনিস খুললে বাইরের লোকের ঘরে ঢুকে চেঁচামেচি করতে নেই। এই সমস্তই আমার, এই কথাটা ভাল করে বুঝিয়ে দিয়ে ও কে যেতে বল । গুণী সমস্ত বুঝিল । তার পর হাসিয়া বলিল, সে সম্পর্কে এতদিন পরে বুঝি সিন্দুক খুলতে এসেছ ? - হেম চেকের পাতা গুনিতে গুনিতে বলিল, ছ । মাদী বলিলেন, ও কে গুণী ? জামার বোন। উত্তর শুনিয়া হেম শিহরিয়া উঠিল। তাহার পর চোখ তুলিয়া একটিবার মাত্র তাহার মুখের দিকে চাহিয়া মাথা ছেট করিয়া রহিল । মালী বলিলেন, কৈ এতদিন ত এসব কথা শুনিনি? কি-রকম বোন হয় ? গুণ সে-কথার উত্তর এড়াইয়া সংক্ষেপে কহিল, ঝগড়া করে চলে গিয়েছিল—ওরই चर्दीश्व भांगैौ । ኟ>ፃ من حاسسيينا