প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (একাদশ সম্ভার).djvu/২১৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


कृब्रिङ्गशैन এমনি করিয়াই ইহাঙ্গের নির্জনবাসের দিনগুলো কাটিতেছিল। এবং ৰোধ করি আরও কিছুকাল কাটিতে পারিত, কিন্তু হঠাৎ একদিন বাধাপড়িল । যাহাকে বলে কাল-বৈশাখী, সেদিন সময়ট ছিল তাই। সমস্ত নিষানটায় যদিচ দুৰ্য্যোগের কোন লক্ষণ ছিল : , কিন্তু অপরাষ্ট্রের কাছাকাছি মিনিট-কুড়ির মধ্যেই আকাশে প্রবল ঝড় উঠিল। ক্ষণকালেই সতীশ অশ্ব-পদশব্দে চকিত হইয় গল। উচু করিয়া দেখিল একটা ভালো ঘোড়া পিঠের উপর সাজ-সজ্জা লইয়া ঝড়ের সঙ্গে উন্মত্ত বেগে ছুটিয়া যাইতেছে । সতীশ ভাকিয়া কহিল, বেহারী, ও কার ঘোড়া ছুটে পালাল জানিস্ রে ? বেহার ঘরের মধ্যে লাতি পরিষ্কার করিতে করিতে কহিল, কোম বাৰু টাৰুর হবে বোধ হয় । 够 সতীশ প্রশ্ন করিল, এদিকে লাৰু-টাবু কে আছে রে ? বেহারী কহিল, এদিকে নাই থাকলে, দেওঘর থেকে প্রায়ই তো বাৰুভায়ার গাড়ি ক’রে ত্রিকূট দেখতে, তপোবন দেখতে আসে। তাদেরই কারো হবে। ঝড়ের ভয়ে ছট মেরেচে। - তা হ’লে ত তার ভারি মুস্কিল, বলিয়া সতীশ পুনরায় তাহার আরাম-কেদারায় গুইয়া পড়িল । কিন্তু কথাটা সে মন হইতে তাড়াইতে পারিল না । তাহার মনে হইতে লাগিল, যেই হোন, সঙ্গে স্ত্রীলোক থাকিলে বিপদ তো সোজা নয় । এ জায়গায় গাড়ি পাঙ্কি ত দূরের কথা, একটা লোকের সাহায্য পাওয়াও কঠিন। তা ছাড়া সন্ধ্যারও বিলম্ব নাই, সম্ভবতঃ বৃষ্টিও নামিবে। সতীশ থাকিতে পারিল না, লাঠিটা বারান্দার কোণ হইতে তুলিয়া লইয়া বাহির হইয়া পড়িল। রাস্তায় আসিয়া দেখিল, পাথরের কুচি গুলো ঝড়ের বেগে ছব্‌রার মত গায়ে বিধিতেছে এবং সমস্ত পথটা ধূলা-বালুতে অন্ধকার হইয়া গেছে। হঠাৎ সেই অন্ধকার হইতে ঝড়ের মুখে একটা হো হো চিৎকার ভাসিয়া আসিল। হোলির দিনের ছুটি পাইয়া হিন্দুস্থানী দরওয়ানের দল যে ধরনের চীৎকার-শস্কে পথে বাহির হইয়া পড়ে—এ লেই। ব্যাপারটা কি, জানিবার জন্য সতীশ সেই ধূলার মধ্যে কতকটা পথ অগ্রসর হইতেই দেখিতে পাইল, পথের উপরে একটা টমটম এবং সেটাকে বেষ্টন করিয়া জাট-দশজন লোক আনন্দ-ধ্বনি করিতেছে। কাহারও মাথায় টুপি, কাহারও মাথায় পাগড়ি— সকলেরই হিন্দুস্থানী পোষাক । * - • जामनछे किन्नब्र खांख एऐबांब्र अडियोदञ्च गजैौ* चांद्र७ करब्रक न चांगदेब्राँ জাসিতেই দেখিতে পাইল, টম্টমের একটা হাতল ধরিয়া একটি স্ত্রীলোক মাখা গুজিয়া चअरू अरुणग्न रश्दा लाग्नाश्व्रा चाप्रु, अक् श्राप्क्रे अक्छ कबि नाकछरण .३ ●4