প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (ত্রয়োদশ সম্ভার).djvu/৩৮২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


•ोकि-जङ्गुष्ठात्र সময় জালে নাই। আর দু’চারটে লেখা দেখি । একথা শুনিয়া লে যেন বলার চেয়ে বেণী কিছু না ভাবিয়া লয়। কাগজ ছবি ইত্যাদিকে অবগু ভাল কিছুতেই বলা যায় না, তবে ভবিষ্যতে ভাল হইবে আশা করা সাজে। আমি আছি বৈকি। লিখিতে বসিতেছি। শীঘ্রই পাঠাইয়া দিয়া বাহির হইয়া পড়িব—যেখানে দু-চক্ষু যায়। অন্ধখের জন্ত ভারতবর্ষের দেনা-পাওনাটাও লেখা হয় নাই—আপনার ঐশরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়। আপনার পাকা-হাতের হাল-খরা বজায় থাকিলে ‘প্রবাস জ্যোতিঃ'র (কাশী থেকে প্রকাশিত মাসিক পত্রিকা) আর যাই হোক, ডুবিবার সম্ভাবনা নাই। আমার মনে হয় এ-দুঃসময়ে আপনার আফিমের মাত্রাট কিঞ্চিৎ বৃদ্ধি করিয়া দেওয়া কর্তব্য। এবং কৰ্ত্তব্য পালনের স্কায় বড় জিনিস সংসারে আর নাই। সাষত বেড়, পানিজ্বাস, জেলা হাওড়া এই আষাঢ়, ৩৮ স্ববরেষু—কোরবাবু, যথাসময়েই আপনার স্নেহশীতল চিঠিখানি পেয়েছিলাম, কিন্তু এ ক'দিন এমনি ব্যস্ত ছিলাম যে উত্তর দিতে পারিনি। কাল আমাদের হাবড়ার জেলা Congress election হয়ে গেলে । এবার বিরুদ্ধ দলের সোরগোল, গালিগালাজ ও লাঠি ঠক্ঠকি দেখে ভেবেছিলাম হয়ত বিনা রক্তপাতে শেষ হবে না । আমি President, স্বতরাং আমাদের যথারীতি প্রভত হতে হয়েছিল। সভায় দাঙ্গা হয় এ আমার ভারী ভয়, তাই কাটা তারের বেড়া, মায় electrification সবই তৈরী রাখতে হয়েছিল। আর তৈরী ছিল বলেই দাঙ্গা হয়নি, নির্বিঘ্নে দখল কায়েম রাখা cre i as Tris President wif, vested interest wra cits-Ierw styl চলে না। চলে কি ? আমাদের পক্ষের যুক্তিটা এই যে গলদ যতই থাক, তোমরা বলবার কে? এবং দেশের মুক্তি যদি আসে তো আমাদের দ্বারাই আন্ধক। তোমরা পারবে না। তোমরা হাত দিতে যেয়ে না। কিন্তু ওরা সম্মত হয় না বলেই তো আমরা রেগে যাই। নইলে আমাদের, অর্থাৎ স্বভাৰী দলের মেজাজ খুবই ঠাও। অনেকটা আপনার মতো। যাক, এখন একটু সময় পাওয়া গেল। ছএকমাস বই লিখতে শুরু করি । কি বলেন ? যখন কলিকাতায় এসেছিলেন জামাকে একটু খবর দেননি কেন ? রাস্তা-ঘাট যত খারাপই হোক, কিছু একটা উপায় করতামই। কাশী যাবেন কবে ? একবার দেখা হলে বড় ভাল হয় । খবর দেবেন। --আপনার শরৎ tఱ eهسهسهلا