প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (ত্রয়োদশ সম্ভার).djvu/৫৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য-সংগ্ৰহ আছে । দু'দিন দেখি। ধরার চেয়ে ওয়াচ করায় মূল্য বেশি,—এই ত সম্প্রতি গভর্ণমেণ্টের ধারণা । কথাটা অপূৰ্ব্ব ঠিক বিশ্বাস করিতে পাৰ্বিল না, কারণ তিনি যাই হোন তবুও পুলিশ। তথাপি, তাহার মুখ দিয়া একটা স্বস্তির নিশ্বাস পড়িল। কহিল, এর বয়স কত ? নিমাইবাবু কহিলেন, বেশি নয়। বোধ হয় ত্রিশ-বত্ৰিশের মধ্যেই । কি রকম দেখতে ? এইটিই ভারি অশ্চির্য্য লাবা। এত বড় একটা ভয়ঙ্কর লোকের মধ্যে কোন বিশেষত্ব নেই, নিতাস্তষ্ট সাধারণ মাতুষ । তাই চেনাও শক্ত, ধরাও শক্ত । আমাদের রিপোর্টের মধ্যে এই কথাটাই বিশেষ করে উল্লেখ করা আছে । অপূৰ্ব্ব কহিল, কিন্তু ধরা পড়ার ভয়েষ্ট ত এর ইঁট-পথে পাহাড়-পৰ্ব্বত ডিঙিয়ে আসা ? নিমাইবাবু বলিলেম, নাও হতে পারে । হয়ত কি একটা মতলৰ আছে, হয়ত পথটা একবার চিনে রাখতে চায়—কিছুই বলা যায় না অপূৰ্ব্ব । এরা যে পথের পথিক, তাতে সহজ মাতুষের সোজা হিসেবের সঙ্গে এদের হিসেব মেলে না,—আজ এরই ভুল কি আমাদের ভুল তার একটা পরীক্ষা হবে। এমনও হতে পারে সমস্ত ছুটোছুটিই আমাদের বৃথা । অপুৰ্ব্ব এবার হাসিয়া কহিল, তাই যেন হয় আমি ভগবানের কাছে সৰ্ব্বাস্ত:করণে প্রার্থনা করি কাকাবাৰু। নিমাইবাবু নিজেও হাসিলেন, বলিলেন, বোকা ছেলে, পুলিশের কাছে একথা কি বলতে আছে ? তোমার বাসার নগরটা কত বললে ? তিরিশ ? কাল সকালে পারি ত একবার গিয়ে দেখে আসবো । এই সমানের জেটিতেই বোধহয় এদের স্টীমার লাগে,—আচ্ছা তোমার আবার অফিসের সময় হয়ে এল, নতুন চাকরি, দেরি হওয়া ভাল নয়। এই বলিয়া তিনি পাশ কাটাইয়া একটু দ্রুতপদে চলিবার উপক্রম করিতেই অপূৰ্ব্ব কহিল, শুধু দেরি কেন, আজ অফিস কামাই হয়ে গেলেও আপনাকে ছাড়চিনে । আমি চাইনে যে তিনি এসে আপনার হাতে পড়েন, কিন্তু সে দুর্ঘটনা যদি ঘটেই তবুও ত একবার চোখে দেখতে পাৰো। চলুন । ইচ্ছ। না থাকিলেও নিমাইবাৰু বিশেষ আপত্তি করিলেন না, শুধু একটু সতর্ক করিয়া দিয়া কহিলেন, দেখবার লোভ ষে হয় তা অস্বীকার করিনে, কিন্তু এ সকল লোকের সঙ্গে কোন রকম আলাপ-পরিচয়ের ইচ্ছে করাও বিপজ্জনক তা তোমাকে Co.