প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দ্বাদশ সম্ভার).djvu/৩২৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রেঙ্গুনে রবীন্দ্র-সংবৰ্দ্ধনা জগৎবরেণ্য— ঐযুত সার রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, নাইট, ডি, লিট্‌, মহোদয় শ্ৰীকরকমলেষু— কবিবর, এই স্থার সমুদ্রপারে বঙ্গমাতার ক্রোড়বিচ্যুত সস্তান আমরা আজ হায়ের গভীরতম শ্রদ্ধা ও আনন্দের অর্ঘ্য লইয়া, আমাদের স্বদেশের প্রিয়তম কবি, জগতের ভাব ও জ্ঞানরাজ্যের সম্রাট—আপনাকে অভিবাদন করিতেছি। আপনি অপূৰ্ব্ব কবি-প্রতিভাবলে নব নব সৌন্দর্ঘ্য ও নব নব আনন্দ আহরণ করিয়া বঙ্গসাহিত্য-ভাণ্ডার পরিপূর্ণ করিয়াছেন, এবং নব স্বরে নব রাগিণীতে ৰক্ষহৃদয়কে এক নব-চেতনায় উদ্বন্ধ করিয়াছেন। আপনার কাব্য-কলার সৌন্দর্ঘ্যের মধ্যে দিয়া প্রাচ্য-হৃদয়ের এক অভিনৰ পরিচয় অধুনা প্রতীচ্যের নিকট স্বপরিস্ফুট হইয়া উঠিয়াছে এবং সেই পরিচয়ের জানলে প্রতীচ্য আজ প্রাচ্যের কবিশিরে সাহিত্যের ষে সৰ্ব্বশ্রেষ্ঠ মহিমা-মুকুট পরাইয় দিয়াছে, তাহার আলোকে জননী বঙ্গবাণীর মুখশ্ৰী মধুর স্মিতোজ্জল হইয়া উঠিয়াছে। আপনার কাব্য-বীণায় সহস্ৰ অনিৰ্ব্বচনীয় স্বরে ভারতের চিরন্তন বাণী, সত্য শিৰ মুন্দরের অনাদি গাথা ধ্বনিত হইয়৷ এক বিশ্বব্যাপী আনন্দ, অপরিসীম জাশা ও জসীম আশ্বাসে মানব-হৃদয়কে আকুল ও উদ্বেল করিয়া তুলিয়াছে। এই ৰিশাল স্বাক্টর অণু-পরমাণু যে এক আনন্দে নিত্য পরিস্পদিত হইতেছে, এবং এক অপরিচ্ছন্ন প্রেমস্থত্রে যে এই নিখিল জগৎ গ্রথিত রহিয়াছে, আপনার কাব্যে সেই পরম সত্যের সন্ধান পাইয়াছি, এবং আপনাকে—কোন দেশ বা যুগ-বিশেষের নয়—সমগ্র বিশ্বের কবি বলিয়া চিনিতে পারিয়াছি। আপনার কথায়, কাব্যে, নাট্যে ও সঙ্গীতে ৰে মহান আদর্শ আত্মপ্রকাশ করিয়াছে, তাহাতে বুঝিয়াছি, এক লোকাতীত রাজ্যের আলোকে আপনার নয়ন উদ্ভাসিত, এক অমৃত সত্তার আনন্দরলে আপনার জন্ম अछिविख् । - আপনার আকৃত্রিম একনিষ্ঠ আজন্ম ৰাণী-সাধনা আজ যে অতীন্ত্রির রাজ্যের বর্ণউপকূলে আপনাকে উত্তীর্ণ করিয়া দিয়াছে, তাকার আনন্দ-গীত নিখিল মান \ఠి