প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দ্বাদশ সম্ভার).djvu/৩৩৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য-সংগ্ৰহ যাহাতে বাঙলা সাহিত্য বড় হইয় উঠে, নিজেদের বুদ্ধি এবং বিজ্ঞা দিয়া তাহাই কর ।* জন্মদিনের ভাষণাবলী ৫৩তম জন্মদিনে বন্ধুজনের সমাদর, স্নেহাস্পদ কনিষ্ঠদের প্রতি এবং পূজনীয়গণের আশীৰ্ব্বাদ আমি সৰিনয়ে গ্রহণ করলাম। কৃতজ্ঞতা-প্রকাশের ভাষা পাওয়া কঠিন। নিজের জন্ত শুধু এই প্রার্থনা করি, আপনাদের হাত থেকে যে মৰ্য্যাদা আজ পেলাম, এর চেয়েও এ-জীবনে বড় আর কিছু যেন কামনা না করি । যে মানপত্র এইমাত্র পড়া হ'লে তা আকারে যেমন ছোট, আস্তরিক সহৃদয়তায় তেমনি বড় । এ তার প্রত্যুত্তর নয় ; এ শুধু আমার মনের কথা, তাই আমারও বক্তব্যটুকু আমি ক্ষুদ্র করেই লিখে এনেচি। এই ষে অনুরাগ, এই যে আমার জন্মতিথিকে উপলক্ষ করে আনন-প্রকাশের আয়োজন—আমি জানি, এ আমার ব্যক্তিকে নয়। দরিদ্র-গৃহে আমার জন্ম ; এইতো সেদিনও দূর-প্রবাসে তুচ্ছ কাজে জীবিকা অর্জনেই ব্যাপৃত ছিলাম ; সেদিন পরিচয় দিবার আমার কোন সঞ্চয়ই ছিল না। তাইতো বুঝতে আজ বাকী নেই—এ শ্রদ্ধনিবেদন কোন বিত্তকে নয়, বিদ্যাকে নয়, উত্তরাধিকার-সূত্রে পাওয়া কোন অতীত দিনের গৌরবকে নয়, এ শুধু আমাকে অবলম্বন করে সাহিত্য-লক্ষ্মীর পদতলে ভক্ত মাজুষের শ্রদ্ধা-নিবেদন । জানি এ সবই। তবুও যে সংশয় মনকে আজ আমার বারংবার নাড়া দিয়ে গেছে সে এই যে, সাহিত্যের দিক দিয়েই এ মর্য্যাদার যোগ্যতা কি আমি সত্যই অর্জন করেচি ? কিছুই করিনি এ-কথা আমি বলব না। কারণ, এতবড় অতি-বিনয়ের : অত্যুক্তি দিয়ে উপহাস করতে আমি নিজেকেও চাইলে, আপনাদেরও না। কিছু আমি করেচি। বন্ধুরা বলবেন, শুধু কিছু নয়, অনেক কিছু। তুমি অনেক করেচ। কিন্তু তাদের দলভূক্ত যার নন, তার হয়ত একটু হেসে বলবেন, অনেক নয়, তবে সামান্ত কিছু করেচেন, এইটিই সত্য এবং আমরাও তাই মানি । কিন্তু তাও বলি ষে সে সামান্তের উদ্ভস্থ বুদ্ধ, আর অধঃস্থ আবর্জন বাদ দিলে অবশিষ্ট যা থাকে কালের বিচারালয়ে তার মূল্য লোভের বন্ধ নয়। এ ধারা বলেন, আমি তাদের প্রতিবাদ SBSBBD DDD DD BDDSBBBDS DDD BBBB BBBB SDDB BDDS BBDD DDDS ●वंशख वङ्ङा । ૭ ર