পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দ্বিতীয় সম্ভার).djvu/১২৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য-সংগ্ৰহ পিয়ারী কিছুক্ষণ চুপ করিয়া দাড়াইয়া থাকিয়া বলিল, তুমি কি আমার ওপর যা ইচ্ছে তাই অত্যাচার করতে পারো ? কহিলাম, যা ইচ্ছে ? একেবারেই না। বরঞ্চ জ্ঞানে অজ্ঞানে অত্যাচার যদি বিন্দুমাত্রও কখনো করে থাকি, তার জন্যে ক্ষমা ভিক্ষণ চাচ্ছি। তার মানে আজ রাত্রেই তুমি চলে যাবে। ईi । আমাকে বিনা অপরাধে শাস্তি দেবার তোমার অধিকার আছে ? না, তিলমাত্র নেই। আমার যাওয়াকেই যদি শাস্তি দেওয়া মনে কর, তা হলে অধিকার নিশ্চয়ই আছে । পিয়ারী হঠাৎ জবাব দিল না। আমার মুখের প্রতি কিছুক্ষণ নীরবে চাহিয়া থাকিয়া কহিল, আমি কোথায় গিয়েছিলুম, শুনবে না ? না। আমার মত নিয়ে যাওনি যে, ফিরে এসে তার কাহিনী শোনাবে । তা ছাড়া আমার সে সময়ও নেই, প্রবৃত্তিও নেই। পিয়ারী আহত ফণিনীর ন্যায় সহসা গর্জিয়া উঠিয়া বলিল, আমারও শোনাবার প্রবৃত্তি নেই। আমি কারও কেনা বাদ নয় যে, কোথায় যাবো, না যাবে, তারও অনুমতি নিতে হবে । যাবে যাও—বলিয়া রূপ ও অলঙ্কারের একটা তরঙ্গ তুলিয়া দিয়া দ্রুতপদে ঘর হইতে বাহির হইয়া গেল। গাড়ি ডাকিতে গিয়াছিল। ঘণ্টাখানেক পরে সদর-দরজায় একখানা গাড়ি থামিবার আওয়াজ পাইয়া ব্যাগটা হাতে লইতে যাইতেছি, পিয়ারী আসিয়া পিছনে দাড়াইল । কহিল, এ কি তুমি ছেলেখেলা মনে কর? আমাকে একলা ফেলে রেখে চলে যাবে চাকর-বাকরেরাই বা কি ভাববে? তুমি কি এদের কাছেও আমার মুখ রাখবে না ? ফিরিয়া দাড়াইয়া কহিলাম, তোমার চাকরদের সঙ্গে তুমি বোঝাপড়া ক'রো— আমার সঙ্গে তার সম্বন্ধ নেই। তা না হয় হলো, কিন্তু ফিরে বন্ধুকেই বা আমি কি জবাব দেব ? এই জবাব দেবে যে তিনি পশ্চিমে বেড়াতে গেছেন। এ কি কেউ কখনো বিশ্বাস করে ? যাতে বিশ্বাস করে সেই রকম কিছু একটা বানিয়ে বলে। পিয়ারী ক্ষণকাল মৌন থাকিয়া বলিল যদি অন্যায়ই একটা করে থাকি, তার কি মাপ নেই ? তুমি ক্ষমা না করলে আমাকে আর কে করবে ? ' বলিলাম, পিয়ারী, এগুলো যে দাসী-বাদীদের মত কথা হচ্ছে। তোমার মুখে ত মানাচ্চে না ! እቖ..•