প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দ্বিতীয় সম্ভার).djvu/২৭৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিরাজ-বেী লিথিয়ছিল, হরিমতির শ্বশুর তাহার জবাব পর্যাস্ত দেয় নাই , কিন্তু বিয়াজের কাছে তাহার নামটি পর্য্যস্ত করিবার জো নাই। সে একেবারে আগুনের মত জলিয়া উঠে । পুটিকে মানুষ করিয়াছে। মায়ের মত ভালবাসিয়াছে, কিন্তু তাহার সমস্ত সংক্সব পৰ্য্যস্ত আজকাল তাহার কাছে বিষ হইয়া গিয়াছে। আজ সকালে নীলাম্বর গ্রামের পোস্ট অফিস হইতে ঘুরিয়া আসিযা বিমর্ষমুখে ঘরে ঢুকিয়া বলিল, পুটির শ্বশুর একটা জবাব পৰ্য্যস্ত দিল না—এ পুজোতেও বোধ করি বোনটিকে একবার দেখতে পেলাম না । বিরাজ কাজ করিতে করিতে একবার মুখ তুলিল। কি একটা বলিতে গেল, কিন্তু কিছুই না বলিয়া উঠিয়া গেল । সেইদিন দুপুরবেলা আহারে বসিয। নীলাম্বব আস্তে আস্তে বলিল, তার নাম করলেও তুমি জলে ওঠ—সে কি কোণ দোষ করেছে ? বিবাজ অদূরেই বসিয়াছিল, চোখ তুলিয়। বলিল, জলে উঠি কে বললে ? কে আর বলবে, আমি নিজেই টের পাই । বরাজ ক্ষণকাল স্বামীর মুখপানে চাহিয়া থাকিয়া বলিল, পেলেই ভাল, বলিযাই BTB BBBBBS BBBB BSBB BBBBS BBBS BBBB ggt BB BTC কেন । এ যেন একেবারে বদলে গেছ । বিরাজ ফিরিয়া দাডাইয কথাটা মন দিয়া শুনিষ বলিল, বদলালেই বদলাতে হয়, বলিয়া বাহির হইয়া গেল । ইহার হ-তিন দিন পরে অপরাহবেলায নীলাম্বর বাহিরের চওঁীমগুপে একা বাসয় গুন গুন কারয় গান গাহিতেছিল, বিবাজ আসিয়া কিছুক্ষণ নিঃশবে থাকিয স্বমুখে আসিয়া দাড়াইল । নীলাম্বর মুখ তুলিয়া বলিল, কি ? বিরাজ তীক্ষ দৃষ্টিতে চাহিযা রহিল, জবাব দিল না। নীলাম্বর মূখ নিচু কবিতেই বিরাজ বক্ষস্বরে বলিল, ভাব একবাব মুখ তোল দেখি । নীলাম্বর মুখ তুলিল না, জবাবও দিল না, চুপ করিয়া বহিল। বিরাজ পূৰ্ব্ববৎ কঠিনভাবে বলিল, এই যে চোখ বেশ রঙ হয়েছে, আবার ঐগুলো খেতে শুরু করেছ ? নীলাম্বর কথা কহিল না, ভয়ে চোখ নিচু কারমা কাঠের মুক্তির মত বসিয়া রছিল। একে ত চিরদিনই সে তাহাকে ভয় করে, তাহাতে কিছুদিন হইতেই বিরাজ এমনই একরাশি উত্তপ্ত বারুদের মত হইয়া আছে যে কখন কিভাবে জলিয়৷ উঠিবে তাঁহা আন্দাজ পৰ্য্যস্ত করিবার জো ছিল না।

ግ›