প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (নবম সম্ভার).djvu/১৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শেষ প্রশ্ন বাহুল্য মনে করি। বহুদিনের বহু কাজে-কৰ্ম্মে যাকে নিঃসংশয়ে চিনেচি বলেই জানি, তার সম্বন্ধে আমার আশঙ্কা নেই। তার যেখানে অভিরুচি সে থাক, আমি নিশ্চিন্ত। কমল তাহার মুখের প্রতি ক্ষণকাল চুপ করিয়া থাকিয়া কহিল, মানুষকে অনেক পরীক্ষা দিতে হয় হরেনবাবু। তার একটা দিনের আগের প্রশ্ন হয়ত অন্তদিনের উত্তরের সঙ্গে মেলে না। কারও সম্বন্ধেই বিচার অমন শেষ করে রাখতে নেই, ঠকতে হয়। কথাগুলো যে শুধু তত্ত্ব হিসাবেই কমল বলে নাই, কি একটা ইঙ্গিত করিয়াছে হরেন্দ্র তাহ অনুমান করিল। কিন্তু জিজ্ঞাসাবাদের দ্বারা ইহাকেও স্পষ্টতর করিতেও তাহার ভরসা হইল না। রাজেনের প্রসঙ্গটা বন্ধ করিয়া হঠাৎ অন্ত কথার অবতারণা করিল। কহিল, আমরা স্থির করেচি শিবনাথকে যথোচিত শাস্তি দেব। কমল সত্যিই বিস্মিত হইল। জিজ্ঞাসা করিল, আমরা কারা ? ' হরেন্দ্র বলিল, যারাই হোক তার আমি একজন। আপ্তবাবু পীড়িত, ভাল হয়ে তিনি আমাকে সাহায্য করবেন প্রতিশ্রুতি দিয়েচেন । তিনি পীড়িত ? ই, সাত-আট দিন অসুস্থ। এর পূর্বেই মনোরম চলে গেছেন। আগুবাবুর খুড়ে কাশীবাসী, তিনি এসে নিয়ে গেছেন। শুনিয়া কমল চুপ করিয়া রহিল। হরেন্দ্র বলিতে লাগিল, শিবনাথ জানে আইনের দড়ি তার নাগাল পাবে না, এই জোরে সে তার মৃত বন্ধুর পত্নীকে বঞ্চিত করেচে, নিজের রুগ্ন স্ত্রীকে পরিত্যাগ করেচে এবং নিৰ্ভয়ে আপনার সর্বনাশ করেচে। আইন সে খুব ভালই জানে, শুধু , জানে না যে দুনিয়ায় এই-ই সব নয়, এর বাইরেও কিছু বিদ্যমান আছে । কমল সহাস্ত কৌতুকে প্রশ্ন করিল, কিন্তু শাস্তিটা তার কি স্থির করেচেন ? ধরে এনে আর একবার আমার সঙ্গে জুড়ে দেবেন ? এই বলিয়াসে একটু হাসিল । প্রস্তাবটা হরেন্দ্রর কাছেও হঠাৎ এমনি হাস্যকর ঠেকিল যে সেও না হাসিয়া পারিল না। কছিল, কিন্তু দায়িত্বটা যে এইভাবে নিজের খেয়াল-মত নিৰ্ব্বিয়ে এড়িয়ে যাবে সেও ত হতে পারে না। আর আপনার সঙ্গে জুড়েই যে দিতে হবে তারও ত मांप्न cबद्दे ? কমল কহিল, তা হলে হবে কি এনে ? আমাকেও পাহারা দেবার কাজে লাগাবেন, না, ঘাড়ে ধরে খেসারত আদায় করে আমাকে পাইয়ে দেবেন? প্রথমতঃ, >W。