প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (নবম সম্ভার).djvu/৭৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎসাহিত্য-সংগ্ৰহ তার পরে আর কোন কথা আপনাকে বলব না । বলিয়া সে চলিয়া গেল । স্বারের বাহির হইতে বলিয়া গেল, হয়ত কাল-পরশু আমি এখান থেকে যেতে পারি। আপ্তবাবু কিছুই বুঝিলেন না, শুধু বুঝিলেন কি একটা ভয়ানক দুর্ঘটনা ঘটিয়া গেছে। 轟 অজিতকে লইয়া টাঙ্গা বাহির হইয়া গেল সে তিনি শুনিতে পাইলেন। মিনিটকয়েক পরে প্রচুর কোলাহল করিয়া নিমন্ত্রিতদের লইয়া মোটর ফিরিয়া আসিল সেও তাহার কানে গেল। কিন্তু তিনি নড়িলেন না, সেইখানেই মূৰ্ত্তির মত নিশ্চল হইয়া বসিয়া রহিলেন। বৈঠক বসিলে বেহার গিয়া সংবাদ দিল, বাবুর শরীর ভাল নয় তিনি গুইয়া পড়িয়াছেন। সেদিন গান জমিল না, খাওয়ার উৎসাহ মান হইয়া গেল, সকলেরই বার বার মনে হইতে লাগিল বাড়ির একজন ভ্রমণের ছলে বাহির হইয়া গেছেন এবং আর একজন র্তাহার বিপুল দেহ ও প্রসন্ন স্নিগ্ধহান্ত লইয়া সভার যে স্থানটি উজ্জল করিয়া রাখিতেন আজ সেখানটা শূন্ত পড়িয়া আছে।

  • 96

এদিকে অজিতের গাড়ী আসিয়া কমলের বাটির সম্মুখে থামিল। কমল পথের ধারের সঙ্কীর্ণ বারান্দায় দাড়াইয় ছিল, চোখাচোখি হইতেই হাত তুলিয়া নমস্কার করিল। গাড়ীটাকে ইঙ্গিতে দেখাইয়া চেঁচাইয়া বলিল, ওটা বিদেয় করে দিন । স্বমুখে দাড়িয়ে কেবল ফেরবার তাড়া দেবে। সিড়ির মুখেই আবার দেখা হইল। অজিত কহিল, বিদেয় করে ত দিলেন, কিন্তু ফেরবার সময় আর একটা পাওয়া যাবে ত ? কমল বলিল, না। কতটুকুই বা পথ, হেঁটে যাবেন! cईä शांद ? o কেন ভয় করবে নাকি ! না হয় আমি নিজে গিয়ে আপনাকে বাড়ি পর্য্যন্ত পৌছে দিয়ে আসব। আমুন। বলিয়া সে তাহাকে সঙ্গে করিয়া রান্নাঘরে আনিয়া বসিবার জন্য কল্যকার সেই আসনখানি পাতিয়া দিয়া কহিল, চেয়ে দেখুন সারাদিন Web"