পাতা:শুভদা (নাটক) - শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.pdf/৪২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


[ গাজার আড়া। পাছায় ইট দিয়ে চক্ৰাকায় মণ্ডলীতে গঞ্জিকা সেবীরা বসে। মাঝে হারাণ, তারিণী, নন্দ প্রভৃতি ! গুই-সঁই গুই-সঁই টানে-খোয়ার কুণ্ডলী উঠছে আর কলকে ঘুরছে। কেউ প্ৰেম ভক্তিতে গাজা কাটছে-কেউ বা হাতের তলায় গাজা ডালছে। তারিণী দম দিয়া কলকে হাবাণের হাতে দিলো । হারাণ কালকের নীচের ছাকড়া ভাল করে। জড়াইয়া টানিতে লাগিল । ] তারিণী। বলিহারী ভাই পো । তবে সামাল যেন কালকে ফাটিও না । তাহলে আবার এই রাত্রে কলকে খুঁজতে যেতে হবে কাতুর পদারে। DBK SSS SSS DB BDD DBBD BBDSS DDS gB খেতে বটে রূপচাদ পঙ্খী ! গোপাল জলে ভেজান গাজা, আন্তর মাখিয়ে ঐ প্ৰেমভক্তিতে কাটতো । তারপর ইয়া বড় YLLB BDBBDBBDDLB LEBDB DLLD DYSACDD KBDDD DBDYS গরদের সাড়ী জড়িয়ে টানতো । গাজা খাওয়ার পর বাটী বাটী ক্ষীর আর রাবিড়ী । নন্দ। (নবদ্বীপ হালদার) তা মুকুৰ্য্যে মশাই-আমাদের সেই দলে ঢুকলে হয় না ? তারিণী। দূর বেট। সে রূপচাদ পঙ্খী কবে মরে গেছে ! আমার ঠাকুরদা তার দলের মেম্বার ছিলো । নন্দ। ওরে বাবা ! চাটুজ্যে খুড়ে তাহলে তিন পুরুষ্ণে গাঁজা খোর! তারিণী। তিনপুরুষ বলছিস কিরে--সাতপুরুষ ! আমির, গাজা খোরের মধ্যে নৈকষ্য কুলীন । 80