প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শ্রীকান্ত (তৃতীয় পর্ব).djvu/৩৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


बैकड-फूडीीब्र नद ¢ማል› আমরা কে, অজয় বোধ হয় তাহা জানিতে পারিয়াছিল। সে তাহার গুরুপত্নীর কথায় সহসা অত্যন্ত ব্যস্ত হইয়া বলিয়া উঠিল, নেই? তাহলে পান বুঝি আজ হঠাৎ ফুরিয়ে গেছে মা ? সুনন্দ তাহার মুখের দিকে একমুহূর্ত মুখ টিপিয়া চাহিয়া থাকিয়া কহিল, ওটা হঠাৎ আজ ফুরিয়ে গেছে, না কেবল হঠাৎ একদিনই ছিল অজয় ? এই বলিয়া সহসা খিলখিল করিয়া হাসিয়া উঠিয়া রাজলক্ষ্মীকে বলিল, ও-রবিবারে ছোট মোহস্তষ্ঠাকুরের আসবার কথায় এক পয়সার পান কেনা হয়েছিল,—সে প্রায় দিন দশেকের কথা। এই! এতেই আমার অজয় একেবারে আশ্চর্য হয়ে গেছে, পান হঠাৎ ফুরাল কি করে? এই বলিয়া সে আবার হাসিতে লাগিল। আজয় মহা অপ্রতিভ হইয়া বলিতে লাগিল, বাং—এই বুঝি! তা বেশ ত, হলই বা ফুরোলই বা— রাজলক্ষ্মী হাসিমুখে সদয়কণ্ঠে কহিল, তা সত্যিই ত ভাই, ত পুরুষমানুষ, ও কি করে জানবে কি তোমার সংসারে ফুরিয়েছে ! অজয় একজনকে তাহার অনুকূল পাইয়া কহিতে লাগিল, দেখুন ত! দেখুন ত! অথচ মা ভাবেন-- সুনন্দ তেমনি সহাস্যে বলিল, হা, মা ভাবেন বৈ কি! না দিদি, আমার অজয়ই হ’ল বাড়ির গিী—ও সব জানে। কেবল এখানে যে কোন কষ্ট আছে, মায় বাবুগিরি পর্যন্ত—এইটেই ও স্বীকার করতে পারে না ! কেন পারব না! বাঃ-বাৰুগিরি কি ভাল! ও ত অামাদের—, বলিতে বলিতে কথাটা আর শেষ না করিয়াই সে বোধ করি আমার জন্য তামাক সক্তিতেই বহিরে প্রস্থান করিল। সুনন্দ কহিল, বামুন-পণ্ডিতের ঘরে হত্ত্বকীই যথেষ্ট, খুঁজলে এক-আধটা সুপুরিও হয়ত পাওয়া যেতে পারে—আচ্ছা, আমি দেখচি,--এই বলিয়া সেও যাইবার উদ্যোগ করিতেই রাজলক্ষ্মী সহসা তাহার আঁচল ধরিয়া কহিল, হত্ত্বকী আমার সইবে না ভাই, সুপুরিতেও কাজ নেই। তুমি একটুখানি আমার কাছে স্থির হয়ে বোসো, দুটো কথা কই । এই বলিয়া সে একপ্রকার জোর করিয়াই তাহাকে পাশে বসাইল । আমি আর-একবার নূতন করিয়া সুনন্দাকে দেখিয়া লইলাম , প্রথমেই মনে হইল, বস্তুতঃ এই দারিদ্র্য জিনিসটা সংসারে কতই না অর্থহীন, একজন যদি তাহাকে স্বীকার না করে । এই যে আমাদের সাধারণ BBBBSBBB BBB BBB BBS BBB DBB BBB BB BBBBBB BBBSB BBB BBS D আছে বস্ত্ৰ-অলঙ্কার ; এই ভগ্ন-গৃহের যেদিকে দৃষ্টিপাত কর, কেবল অ -অনটনের ছায়া—কিন্তু তবুও সে যে ওই ছায়ামাত্রই, তার বেশি কিছু নয়, সেকথাও যেন সঙ্গে সঙ্গেই চোখে পড়িতে বাকী থাকে না। অভাবের দুঃখটাকে এই মেয়েটি কেবলমাত্র যেন চোখের ইঙ্গিতে নিষেধ করিয়া দূরে রাখিয়াছে--জোর করিয়া সে ভিতরে প্রবেশ করে, এতবড় সাহস তাহার নাই। অথচ মাসকয়েক পূর্বেও ইহার সমস্তই ছিল—ঘরবাড়ি, লোকজন, আত্মীয়-বন্ধু— সচ্ছল সংসার, কোন বস্তুরই অভাব ছিল না—শুধু একটা কঠোর অন্যায়ের ততোধিক কঠোর প্রতিবাদ করিতে সমস্ত ছাড়িয়া আসিয়াছে একখণ্ড BBBB BB BBB BBS BBBBB BBB BB BBB BB BB BBBS BBB BB BB ইহার কঠোরতার কোন চিহ্ন নাই । রাজলক্ষ্মী হঠাৎ আমাকে লক্ষ্য করিয়া কহিল, আমি ভেবেছি বা নন্দার বুঝি বয়স হয়েচে। ও হরি! একেবারে ছেলেমানুষ: অজয় বোধ হয় তাহার গুরুদেবের কাতেই মাক সাজিয়া আনিতেছি- , সুনন্দা তাহাকে দেখাইয়া বলিল, ছেলেমানুষ কিরকম! ওই অত বড় বড় ছেলে যার, তার বয়স বুঝি কম! এই বলিয়া সে হাসিতে লাগিল। চমৎকার স্বচ্ছল সরল হাসি। অজয় নিজেই উনুন হইতে আগুন লইৰে কি না জিজ্ঞাসা করায় পরিহাস করিয়া কহিল, কি জ্ঞানি কি জাতের ছেলে বাবা তুমি, কাজ নেই তোমার উনুন জুয়ে। আসল কথা, অলৰ অঙ্গার চুল্পী হইতে উঠানো শক্ত বলিয়া সে আপনি গিয়া আগুন তুলিয়া কলিকাটার উপরে রাখিয়া দিয়া অঞ্চয়ের হাতে দিল, এবং হাসিমুখে ফিরিয়া আসিয়া স্বস্থানে