পাতা:শ্রীমদ্‌ভগবদ্‌গীতা-বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/১১৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


a & শ্ৰীমদ্ভগবদগীত। এই ( আত্মা ) কে কেহ আশ্চৰ্য্যবৎ দেখেন ; কেহ ইহাকে আশ্চৰ্য্যবৎ বলেন ; কেহ ইহাকে আশ্চর্যাবৎ শুনিয় থাকেন ; শুনিয়াও কেহ ইহাকে জানিতে পায়িলেন না । ২৯ । এই শ্লোকের অভিপ্রায় এই । আত্মা অবিনাশী হইলেও পণ্ডিতেরাও মৃত ব্যক্তির জন্ত শোক করিয়া থাকেন বটে। কিন্তু তাহার কারণ এই, যে তাহারাও প্রকৃত আত্মতত্ত্ব অবগত নহেন BBBS BBBBB BB BB BBBB BBBB BBSBBB BBB বিবেচনা করেন । আত্মার ইজে য়তাবশতঃ সকলের এই ভ্রান্তি । এ কথাতে এই আপত্তি হইতে পারে, যে “আত্মা অবিনাশী,” এবং “হন্দ্রিরাদির আবিষয়” এই সকল কথাতে এমন কিছু নাই যে পণ্ডিতেও বুঝিতে পারে না । কিন্তু তগবঢুক্তির উদ্দেশু কেবল দুৰ্ব্বোধ্যতা প্রতিপাদন করা নহে । আমরা আত্মীঃ অবিনাশিত বুঝিতে পারিলেও, কথাটা আমাদের হৃদয়ে বড় প্রবেশ করে না । তদ্ব্যিয়ক ধে বিশ্বাস, তাহ। আমাদের সমস্ত জীবন শাসিত করে না । এই বিশ্বাসকে আময় একটা সৰ্ব্বদাজাজণ্যমান, জাবস্তু, সৰ্ব্বথা-হৃদয়ে-প্রস্ফুটিত-ব্যাপারে পরিণত করি না। ইহাই ভগবঢুক্তির উদ্দেশু । দেহী নিত্যমবধ্যোহয়ং দেহে সর্ববস্ত ভারত ! । তস্মাৎ সর্বপাণি ভূতানি ন ত্বং শোচিতুমৰ্হসি ॥ ৩০ ॥ হে ভারত ! সকলের দেহে, আত্মা নিত্য ও অবধ্য । অতএব জীব সকলেয় জন্য তোমার শোক করা উচিত নহে। ৩• । আত্মার অবিনাশিভা সম্বন্ধে যাহ। কথিত হইল, এই শ্লোক তাহার উপসংহার।