পাতা:শ্রীমদ্‌ভগবদ্‌গীতা-বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


eF শ্ৰীমদ্ভগবদগীতা । কেবল ঈশ্বরের প্রতি অবিচার আরোপ করা হয় এমত নহে । ঘোরতর নিষ্ঠুরতা আরোপ করাও হয়। যাহাকে দয়াময় বলি, তিনি ষে এই অল্পকাল পরিমিত মনুষ্যজীবনে কৃতপাপের জন্ত অনন্তকালস্থায়ী দণ্ড বিধান করিবেন, ইহার অপেক্ষ অবিচার ও নিষ্ঠুরতা আর কি আছে ? ঈদৃশ নিষ্ঠুরতা ইহলোকের পামরগণের মধ্যেও পাওয়া যায় না। বদি বল, যাহার পাপের ভাগ বেশী, পুণ্যের ভাগ কম, সে পুণ্যানুরূপ কাল স্বর্গ ভোগ করিয়া অনন্তকাল জন্ত নরকে যাইবে, এবং তদ্বিপরীতে বিপরীত ফল হইবে ; তাছাতেও ঐ সকল আপত্তির নিরাশ হইল না। কেন না, পরিমিত কাল, কোটি কোটি যুগ হইলেও, অনন্ত কালের তুলনায় কিছুই নহে। অবিচার ও নিষ্ঠুরতার লাঘব হইল, এমন হইতে পারে, অভাব হইল না। অতএব তুমি যদি স্বর্গ নরক স্বীকার কর, তবে তোমাকে অবশু স্বীকার করিতে হইবে, যে অনন্ত কালের জন্ত স্বর্ণ নরক ভোগ বিহিত হইতে পারে না। তুমি উদ্ধ ইহাই বলিতে পার যে, পাপ পুণ্যের পরিমাণাকুযায়ী পরিমিত কাল জীব স্বৰ্গ বা নরক, বা পৌৰ্ব্বাপৰ্য্যের সহিত উভর লোক ভোগ করিবে। তাহা হইলে সেই সাবেক প্রশ্নটার উত্তর বাকি থাকে। সেই পরিমিত কালের অবসানে জীবাত্মা কোথায় যাইবে ? পরব্রহ্মে লীন হইতে পারে না, কেন না, জ্ঞান কৰ্ম্মাদিই যদি মুক্তির উপায়, তবে স্বর্গ নরকে সে উপায়ের সাধনাভাবে মুক্তি অপ্রাপ্য। কেন না স্বর্গ নরক ভোগ মাত্র~~ৰক্ষ্ম ক্ষেত্র নহে, এবং দেহশূন্ত আত্মার জ্ঞানেন্দ্রির *3 কৰ্ম্মেস্ক্রিন্থের অভাবে, স্বর্গ নরকে জ্ঞান কৰ্ম্মের অভাব । অতএব