পাতা:সনেট-পঞ্চাশৎ - প্রমথ চৌধুরী.pdf/৪২

এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।




বাহার

নটীবেশে তুমি এস, রাগিণী বাহার!
অঙ্গরাগ ধরি নব উজ্জ্বল শ্যামল,
মালতীর মালা চুলে, করেতে কমল,
চরণে তাড়না করি শীতের নীহার॥

বিলাসী পবন সনে উদ্যানবিহার
কর তুমি, অঙ্গে মাখি মল্লি-পরিমল।
নেত্রপুটে ধরি’ আভা কৌমুদী-কোমল,
ধরায় সলীল সুর দাও উপহার॥

তোমার পাপিয়াকণ্ঠ কাঁপিয়ে কাঁপিয়ে,
বসন্তের তানে দাও দিগন্ত ছাপিয়ে॥

স্বরে গেঁথে সাত-ন’র বৈজয়ন্তী-হার,
ঝুলিয়ে দুলিয়ে দাও আকাশের গলে!
শোক দুঃখ ভয় বাধা করি’ পরিহার,
উঠুক প্রাণের দীপ মুহূৰ্ত্তেক জ্বলে’।

৩৮