পাতা:সিক্ত সিঁথি দুরন্ত শ্রাবণ.pdf/৪২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


উত্তরাপথ যেয়োনা উত্তরে হাওয়া,—প্রিয়মুখ ক্রমশ হারায়, দু’ধারে 'সারি বৃক্ষ নম্র যদি অভিধন্দনায়, নিশাতবাগের রাত্ৰে বুক যদি ভরে মুরজাহান, কলিজায় খুলে যায় ইর্তস্তত ত্ৰস্ত শাম্পান । কে তুই ঘাতক হাওয়া ! শতাব্দীর নয়নাভিরাম ভেঙে দিয়ে রাঙা শাগি; মগ্ন বই, অ্যাস্ট্রের আরাম ভাসাস প্রখর স্রোতে ; ক্ষাত্র রাত—নক্ষত্র আড়াল শাহীবাগে কুহকিনী পর্দাঙড়ে কলঙ্কে উত্তাল। আমি চাই না তোকে ঝড়—ওরে তোর মুদ্রায় বিনতি ; আমার পিচ্ছিল রক্তে আজও ইচ্ছা এখনো সন্ততি, এখনও নিশীথ রাত্রে স্ফীত শিরা দুৰ্নিবার ডাকে— ফিরে যা, উত্তরে হাওয়া, দ্রীক্ষারক্তে চিনারের বাঁকে ॥ ' हब्लिभं