প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:সিক্ত সিঁথি দুরন্ত শ্রাবণ.pdf/৪৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


আজ দিন-যাপনের চেনা পর্ব নিঃশেষে চুকিয়ে ংসারের টুকিটাকি নানা কাজে বিকিয়ে বিকিয়ে বিন্দু বিন্দু স্নান সভা, ক্লান্ত দেহ ভারে পারো তো একবার বোসো—অবসন্ন রাত্রির কিনারে । তুমি স্বপ্নের নও, স্বপ্নই বরং তোমার শরীর, কিম্বা বিকেলের ছায়া অনুপম । ক্লান্তি তোমার দেহ, যেখানে সংসার প্রতিদিন তুলে দেয় দৈনন্দিনতার ভার – বিপরীত স্রোতে তার তোমার মাটির মর-দেহে নিরুচ্চার কৃষ্ণকলি ভিতর-উদ্যান রাখে ছেয়ে । তোমার কাজের ঘরে কিছু নেই, যা বর্জনীয় ভেবে পাশে সরিয়ে রাখবে তুমি প্রিয়। জীবন করে না ক্ষমা, আগন্তুক অনেক বুলবুলি উঠোনে বিছানো রৌদ্রে খেয়ে যায় রাঙা ধানগুলি, এবং সময় যায় চলে যায়, শুধু একটি হাত শুভ্র চাদর ঢাকা বিছানায় শায়িত সম্রাট । তবু অনিঃশেষ, তবু, হা প্রচ্ছন্ন আন্তরিক মেয়ে একটি একটি করে জীবনের দেন শোধ দিয়ে তবেই কি শেষ যতি ?—সব ফেলে দিয়ে তাই তো বলি না : এসো,—শুভ্ৰ হাত রক্ত পদ্ম নিয়ে । আটত্রিশ