প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:সিমার - শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.pdf/১৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গাযে মুখ ঠেকিযে, নিঃশ্বাস ফেলে। হিম উষ্ণ মুখ । সুখাবাসেব ঘুমন্ত গা শিবশিব ক'বে ওঠে। ঘুম ভেঙে যায । হঠাৎ ঘোড়াব ছায়, দেখে আঁৎকে ওঠে । ঘোড়াটাকে আশ্চর্য ভয্য কবে তাব । মনে হয। এ ঠি * xmাড়া নয। জাহেদা । জাহেদাবি মৃত্যু। সেই মৃত্যুব এক প্রবল আকৃতি । সুখ ”। স্পর্শে জাহেদা এই ধাবা সিটিয়ে আঁৎকে বলেছিল-হায্য খুদা খুন্দাবন্দ । দুই লাজায আব্ব মক্তৰ যতে পাবে না। সুখবাস । ঘটনাব পৰা একদিন মাত্র গিযেছিল । মৌলবীবা খুব ভালো ক'লে কথা বলেননি । ছাত্রছাত্রীবা কেমন চোখ বড় বড় ক’ৰে ৩াকে দেখছিল । ববং গিযাসজীদ তাকে কাছে ডেকে পড়া বুঝিযে দিযেছিলেন । ভালো ব্যবহাব কবেছিলেন । বলেছিলেন-মন দিয়ে পড়াশুনে ক’বে পাবহে জগাব হও । খোদাভীক হও ! ইমাম হওঁ । এভালো মওলানা হও । যদি কোনো বন্দি (পপি) ক’বে থাকো খোদাবী কাছে মাফ চাও । কাদো ! ইত্যাদি অনেক উপদেশ দিয়েছিলেন । কিন্তু সুখবাস লক্ষ কবছিল, মুসলমানেব জামাতে তাব স্থান ক্রমশ সংকুচিত হযে আসছে । কিছুদিন সেই ধাবা মনে হলেও ক্রমশ সুখবাস টেব পাচ্ছিল তাব দুর্ঘটনাব কথা লোকে ভুলে যাচ্ছে । জাহেদা এক তুচ্ছ জীব । আমন মৃত্যু কখনো ঘটে না এমন নয় । বন্ধুদেব সে গোপনে শুধিযে দেখেছে, কমবযসী। বউবা স্বামীব ভযেই বিযেব পাব কিছুদিন বাপেব ঘব পালিযে বেড়ায । গাযোেব বাস্তায্য কত কচি মেযেকে চুপচাপ পালিযে যেতে দেখেছে তাবা । যাই হােক । সাত মাস বাদে সুখবাসেব দ্বিতীয বিযে হয় । দাদীমা বলেছিল, তাজা মেযে এনে । তাগড়া জাহবাজ মেযে এনে । পুকষ্ট গোলগাল মেযে এনে । যুবতী মেযে এনে । দাদী মাযেব কথা অক্ষবে অক্ষবে মান্য কিবা হযেছিল । মদিনা ছিল জাহবাজ মেযে। তাগড়া । তাজা । পুকষ্ট আবি ভযানক যুবতী । মদিনাব বাপ ছিল গামছা-বোনা জেলা । ভীষণ দাবিদ্র । গাঁযে গামছা বিক্রি কবতে এসে সুখবাসেব বাপ-চাচােব সাথে বিযেব কথা পাকা হয। লোকটি ভালোমানুষ । সুখবাসকে ঘূণা কবেনি। কাবণ দাবিদ্রবা ভালোমানুষই হয়। যথাতথা ঘূণা কবে না । তাছাড়া মেয়ের ব্যাপকে নাক উচু করলে চলে না। অতএব বিযে হযে গিযেছিল। বিযেব রাত | তখন গবাম কাল । বাসব ঘরে ঢ়োকাব আগে বাবান্দাযী জামা কাপড খুলে হাওযা খাচ্ছিল সুখবাস । এক ফাঁকে নামাজ পড়ে নিয়েছিল । $ዓ