পাতা:১৯০৫ সালে বাংলা.pdf/৭৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


{ لا طه ] করিতে যায় ইহাতে বাধা দেওয়ায় জমিদারের দেওয়ান (৭) বাৰু রাজকুমার চক্রবর্তী ও র্তাহার পদাতিক (৮) লালু বাদ্যকর অভিঃ যুক্ত হন । নিম্ন আদালতের বিচারে যে কোন বিক্রেতা হাটে যাহা ইচ্ছা বিক্রয় করিতে পারিত, সেইজন্য বিক্রয়ে বাধা প্রদান এবং অবৈধ জনতা ও গুরুতর আঘাত দ্বারা আসামীরা কঠোর অপরাধ করিয়াছে স্থতরাং রাজকুমার বাবুর তিন শত টাকা অর্থদণ্ড এবং তিন মাস কঠোর কারাবাসের আজ্ঞা হয়। লালু বাদ্যকরের এক শত টাকা জরিমানা ও দেড়মাস সপরিশ্রম অবরোধের আদেশ হইয়াছিল। গত ২৮শে ফেব্রুয়ারি আপীল আদালত স্থির করিয়াছেন ষে হাটের অধিকারী যাহা ইচ্ছা বিক্রয়ে বাধা দিতে বা নিষেধ করিতে পারেন তবে সে জন্য র্তাহার কৰ্ম্মচারীরা অবৈধজনত ঘটাইতে বা কাহাকেও প্রহার করিতে পারেন না। এই নিমিত্ত অবশিষ্ট কারাবাস রহিত করিয়া দেওয়া হইল। ষে কয়দিন খাটা হইয়াছে তাছাই যথেষ্ট বিবেচিত হইয়াছে । অর্থদণ্ড প্রভৃতিতে হস্তক্ষেপ করা হইল না। সন্মান নিদর্শন স্বরূপ রাজকুমার বাবুকে রজত পদক ও সেখ লালু বাস্তুকরকে রৌপ্য লকেট প্রদান করা হইয়াছে। ঢাকা প্রকাশু সভায় শ্ৰীযুক্ত বাৰু আনন্দচন্দ্র রায় সভাপতিত্বে স্বরেক্স বাবু স্বয়ং এই সম্মান নিদর্শন প্রদান করেন । ফরিদপুর-মাদারিপুর। শ্ৰীমান অনস্তমোহন দাস নামক একটী ছাত্র ক্যাটেল সাহেবের