পাতা:Intermediate Bengali Selections.pdf/৯৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।


সেকাল আর একাল

৭৫

“Here lies John Palmer, friend of the poor."---
“এখানে দরিদ্র-জন-বন্ধু জন পামর আছেন,” কেবল এই বাক্যটি
লিখিত হইয়াছিল। কেরি ও মার্শমেন সাহেব খৃষ্টীয় ধর্ম প্রচারক
ছিলেন। তাঁহারা শ্রীরামপুরে বাস করিতেন। তাঁহারা বাঙ্গালা
অভিধান, বাঙ্গালা সংবাদপত্র ও উন্নত প্রণালীর বাঙ্গালা পাঠ-
শালার সৃষ্টিকর্তা ছিলেন। তাহারা অনেক প্রকারে বঙ্গদেশের
মহােপকার সাধন করিয়া গিয়াছেন। সেকালের এই সকল
মহদন্তঃকরণ সাহেবেরা চিরকাল বাঙ্গালীদিগের স্মৃতিক্ষেত্রে
বিদ্যমান থাকিবেন তাহার সন্দেহ নাই।
অতঃপর সে কালের বাঙ্গালীদের বিষয় বলিতে প্রবৃত্ত হই-
তেছি। সে কালের বিশেষ বিশেষ শ্রেণীর লােকদিগের বর্ণনা
করিতে গেলে আমাদের দৃষ্টি গুরুমহাশয়ের উপর প্রথম পতিত
হয়। গুরুমহাশয়দিগের শিক্ষাপ্রণালী উন্নত ছিল না এবং
তাহাদের অবলম্বিত ছাত্রদিগের দণ্ডের বিধানটি বড় কঠোর
ছিল। নাড়গােপাল অর্থাৎ হাঁটু গাড়িয়া বসাইয়া হাতে প্রকাণ্ড
ইষ্টক অনেকক্ষণ পর্যন্ত রাখানাে, বিছুটি গায়ে দেওয়া ইত্যাদি
অনেক প্রকার নির্দয় দণ্ড প্রদানের রীতি প্রচলিত ছিল। পাঁচ
বৎসর বয়স হইতে দশ বৎসর বয়স পর্যন্ত তালপাতে; তার
পর পনের বৎসর বয়স পর্যন্ত কলার পাতে; তার পর কুড়ি
বৎসর বয়স পর্যন্ত কাগজে লেখা হইত। সামান্য অঙ্ক কষিতে,
সামান্য পত্র লিখিতে ও গুরুদক্ষিণা ও দাতাকর্ণ নামক পুস্তক
পড়িতে সমর্থ করা, গুরুমহাশয়দিগের শিক্ষার শেষ সীমা ছিল।
গুরুমহাশয় অতি ভীষণ পদার্থ ছিলেন। আমার স্বরণ হয়,
আমি যখন গুরুমহাশয়ের পাঠশালায় পাঠ করিতাম, তখন