৬৪

আমার  খেলা যখন ছিল তােমার সনে
তখন  কে তুমি তা কে জানত।
তখন  ছিল না ভয়, ছিল না লাজ মনে,
জীবন  বহে যেত অশান্ত।
তুমি ভােরের বেলা ডাক দিয়েছ কত
যেন আমার আপন সখার মতাে,
হেসে  তােমার সাথে ফিরেছিলেম ছুটে
সে দিন  কত-না বন-বনান্ত।
ওগাে,  সেদিন তুমি গাইতে যে-সব গান
কোনাে  অর্থ তাহার কে জানত।
শুধু  সঙ্গে তারি গাইত আমার প্রাণ,
সদা  নাচত হৃদয় অশান্ত।
হঠাৎ  খেলার শেষে আজ কী দেখি ছবি—
স্তব্ধ আকাশ, নীরব শশী রবি,
তােমার  চরণ-পানে নয়ন করি নত
ভুবন  দাঁড়িয়ে আছে একান্ত।