প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অক্ষয়কুমার বড়াল গ্রন্থাবলী.djvu/৩৯৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সম্মাদকীয় ভূমিকা । আমাদের দেশে একটা কথা আছে, বারে হাত কাকুড়ের তেরে হাত বিচি। কবিবর অক্ষয়কুমার বড়ালের কাব্য-গ্রন্থাবলীর বিবিধ খণ্ড ঠিক তাহাই হইল। র্তাহার জীবৎকালে মুদ্রিত পাঁচটি কাব্য প্রদীপ কনকাঞ্জলি' 'ভুল' শঙ্খ ও এষা আমাদের গ্রন্থাবলীতে যথাক্রমে ৫৬, ৫৭, ৫৮,৬৫ ও ৯১ পৃষ্ঠার আকার লইয়াছে; বিবিধ ১৩৬ পৃষ্ঠায় শেষ इहेण । (अंद झ्हेज दल ८वांश झग्न ठेिक श्झेल ना, नान्लश् श्हेrउाछ् कप्लङिপড়তি এখনও কিছু থাকিয়া গেল। যদি সংস্করণান্তর হয় তাহা হইলে ইহাকে সম্পূর্ণাঙ্গ (exhaustive) করিবার চেষ্টা করিব। বিবিধ খণ্ড গ্রন্থাকারে সম্পূর্ণ অপূর্বপ্রকাশিত। ১২৮৯ বঙ্গাব্দের (বয়স বাইশ, জন্ম ১২৬৭, ১৮৬০ খ্ৰী: ) অগ্রহায়ণ সংখ্যা বঙ্গদর্শনে তাহার প্রথম প্রকাশিত কবিতা “রজনীর মৃত্যু” মুদ্রিত হয়। ১৩২৬ সালের ৪ঠা আষাঢ় মৃত্যু পর্যন্ত কল্পনা প্রচার বাণী বিভা ভারতী ‘নব্যভারত সাহিত্য ‘অর্চনা ‘সুবর্ণবণিক সমাচার প্রভৃতি সাময়িক পত্রে র্তাহার বহু কবিতা প্রকাশিত হইয়াছিল। মৃত্যুর পরেও অনেক দিন পর্যন্ত অনেক অপ্রকাশিত কবিতা মাসিকপত্রে স্থান পাইয়াছিল। কবি জীবিতকালে সাময়িক পত্রে ইতস্তত ছড়ানো কবিতার সকলগুলিকে উাহার পাচখানি কাব্যে স্থান দেন নাই। এই পরিত্যক্ত কবিতাগুলি ও মৃত্যুর পরে প্রকাশিত কবিতাগুলি এই সর্বপ্রথম গ্রন্থাকারে প্রকাশিত হইল। পরিত্যক্ত হইলেও এগুলি কম মূল্যবান নয়। দৃষ্টান্তস্বরূপ বলিতে পারি, “পান্থ” কবিতাটি তাহার অন্যতম শ্রেষ্ঠ রচনা হইয়াও গ্রন্থে স্থান পায় নাই ; তাহার রচিত গাথা ও সঙ্গীতগুলির অধিকাংশের সেই অবস্থা। সঙ্গীতে অক্ষয়কুমার রাম বস্থ, শ্ৰীধর কথক, নিধু গুপ্তের উত্তরসাধক। নির্দিষ্ট সুর-তালে গাহিলে কেমন দাড়াইবে জানি না, কিন্তু প্রেম-বিরহের এই সকল গানের কথা অনবদ্য, বাংলা-সাহিত্যে স্থায়ী আসন পাইবার দাবী এগুলির অাছে । সকল সাময়িকপত্র ঘাটিয়া সব পরিত্যক্তদের যে আমরা সংগ্ৰহ করিয়াছি বলিতে ভরসা নাই, কাজেই ভবিষ্যতের ভরসায় রছিলাম। :