প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অনাথবন্ধু.pdf/৫২০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


钟娴*$一列*环$11】 ასo I পঞ্জিকা-পঞ্চাঙ্গশোধন। “আমাদের পুণ্যভূমি ভারতবর্ষে উগ্ৰতপা মহর্ষি ঋষ্যশৃঙ্গ est - is ea a adhism خط۔ معہ re চিত (সদ্য উদিত) সুৰ্য্যে ও রাক্ষসীবেলায় শ্ৰাদ্ধ করিবে: জন্মগ্রহণ করিয়া এই জগৎকে পবিত্ৰ করিয়াছিলেন, তাহা সকলেই জানেন । সেই মহাত্মা পরমাল্পতিথির মান -যাহা সৰ্ব্বজনপ্ৰত্যক্ষসিদ্ধ, তাহারই আশ্রয়ে ধৰ্ম্মকাৰ্য্যে দণ্ডীদিগের একাদশী ব্ৰতের ব্যবস্থা করিয়া গিয়াছেন । সেই মহাত্মার বচন এই— অবিদ্ধানি নিষিদ্ধৈশ্চেন্নলভ্যান্তে দিনানি তু। মুহূৰ্ত্তৈঃ পঞ্চাভিবিদ্ধ গ্ৰাহৈ বৈকাদশী তিথিঃ ৷” কলিকাতা সংস্কৃত কলেজের ভূতপূৰ্ব্ব অধ্যক্ষ স্বৰ্গীয় মহা মহোপাধ্যায় মহেশচন্দ্ৰ ন্যায়রত্ন সি. আই. ই. মহোদয় বহুতর শাস্ত্রীয় প্ৰমাণদ্বারা এই বাণীবৃদ্ধিরসক্ষয়ৰূপ প্রবাদবাক্যের খণ্ডন করিয়াছেন-বাহুল্যািভয়ে তাহার সকল প্ৰমাণের উল্লেখ না করিয়া মাত্র একটি হেতুর উল্লেখ করা হইতেছে। তিনি নির্ণয়ামৃত নামক প্ৰসিদ্ধ স্মৃতিগ্ৰন্থ হইতে বচন উদ্ধত করিয়া দেখাইয়াছেন বিদ্ধাধিক দ্বাদশী হীনাতু গৃহস্থৈঃ পূৰ্ব্বৈ বোপাধ্যা, DBBDDDDDBDB S DBBBBDSS DSDDkSDBBBBD নক্তাদিকং বিহিতং, তৎ কথং গৃহি যতি বিষয়ত্বেন ব্যবস্থেতি চেৎ, সত্যং একাদশী ব্রতম্ভ নিত্যত্বাব্দ ব্যবস্থা সিদ্ধিরিতি। তদুক্তম। — অবিদ্ধত্বনিষিদ্ধ চেন্ন লভ্যেত যদা তিথিঃ । মুহূৰ্ত্তৈঃ পঞ্চাভিাবিদ্ধ গ্রাহ্যাপ্যেকাদশী তিথি: | ইতি পঞ্চমুহূৰ্ত্তৈবিদ্ধায়ামপি গ্ৰহণাৎ। এ স্থলে অধিক বেধে ও একাদশীর উপবাস হইতে পারে, এই ব্যবস্থা সপ্রমাণ করিতে গিয়া হেতু দেওয়া হইয়াছে— পাচ মুহুৰ্ত্ত বিদ্ধার ও ( একাদশীরাও) বচনে গ্ৰহণ আছে ; পঞ্চমুহূৰ্ত্ত বিদ্ধয়া অপি গ্ৰহণাৎ। একে এটি হেতুবাক্য -(সিদ্ধ না হইলে হেতু হইতে পারে না। ) তাহাতে আবার “অপি” শব্দের যোগ আছে। সুতরাং এ স্থলে আর কোনরূপ ( বাণীবৃদ্ধির সক্ষয় রূপ।) কল্পনাই স্থান পাইতে পারে না । এই সকল পৰ্য্যালোচনা করিলে জানা যায়, বাণীবৃদ্ধি রসক্ষয় তিথির স্থায়িমান নহে, ভিন্ন ভিন্ন সময়ে দৃকতুল্যতাসাধনের জন্য ভিন্ন ভিন্ন প্ৰকার পরম মনদফল ও বীজ গ্ৰহণ করিতে হয়, সুতরাং তিথির পরম হ্রাস-বৃদ্ধিও ভিন্ন ভিন্ন প্ৰকার হইয়া থাকে। ইহা শাস্ত্ৰবিরুদ্ধ নহে । ৩ । তৃতীয় আপত্তি-সপ্তবৃদ্ধি দশক্ষয় স্বীকার করিলে মুখ্যাপিরাহ না পাওয়ায় শ্ৰাদ্ধলোপ হইতে পারে । সুতরাং अंडाश्ioन १iांश नाश् । উত্তর-দশ দণ্ড কেন, পনের দণ্ড ক্ষয় হইলেও वाकष्णांश श्प्ड श्राद्ध ना । ब्रयूनगन थांकऊब ७ डिक्षिতত্ত্বে লিখিয়াছেন।--রাত্ৰিতে, উভয় সন্ধ্যাকালে ও অচিরো না । ইহা ছাড়া অন্য সকল সময়েই শ্ৰাদ্ধ করিতে পারে। রাত্ৰৌ শ্ৰাদ্ধং নকুকবীত রাক্ষসী কীৰ্ত্তিতা হি সী। সন্ধ্যায়োরুভয়োশ্চৈব সুৰ্য্যে চৈবাচিরোদিতে । সায়াহমন্বিমুহূৰ্ত্তঃ স্যাৎ শ্ৰাদ্ধাং তত্ৰ ন কারয়েৎ । রাক্ষসী নাম সা বোলা গৰ্হিতা সৰ্ব্বকৰ্ম্মসু । প্ৰাতঃসন্ধ্যায় অৰ্দ্ধ মুহূৰ্ত্ত, অচিরোদিত সুৰ্য জন্য ১ মুহুৰ্ত্ত, রাক্ষসীবেলা ৩ মুহুৰ্ত্ত, মোট ৪৫ সাড়ে চারি মুহুৰ্ত্তকাল শ্ৰাদ্ধে নিষিদ্ধ (পযুদস্ত ) কাল। ইহা ছাড়া দিনে সকল সময়েই শ্ৰাদ্ধ করিতে পারে । পোষ মাসে যখন দিন সর্বাপেক্ষা BB DSBDBDD0D DDDD DDDLDB BB BBDBD D KSS S BDB 8३ भूलूर्ड थाम्र ४ ल७ । qझे ध् १७ दाऊँौड अभिछे २४ ल७ শ্রাদ্ধের বিহিত কাল । ইহার ১০ দণ্ড তিথিক্ষয় হইলেও ৮ দণ্ডমধ্যে শ্ৰাদ্ধ হইতে পারে, সুতরাং শ্ৰাদ্ধালোপের আশঙ্কা নাই। রঘুনন্দন চারি প্রকার শ্ৰাদ্ধকাল বলিয়াছেন এবং তাহদের বিহিত, প্ৰশস্ত, প্ৰশস্ততর ও প্ৰশস্ততম, এই চারি প্রকার নাম দিয়াছেন । রাত্ৰাদি পযুদন্তেতির কাল-কুতুপাদি মুহূৰ্ত্তপঞ্চক, রোহিণাদি মুহূৰ্ত্তচতুষ্টয়, দশমাদি মুহূৰ্ত্তত্রয়ারূপকাল চতুষ্টয়ং আপরাহিক শ্রাদ্ধে বিহিত-প্ৰশস্তপ্ৰশস্ততর-প্ৰশস্ততমত্বেন বোধ্যং অক্ষয়াদি ফল FCN উপরি-উক্ত চারি প্রকার কােলও আবার দুই ভাগে বিভক্ত, একাদশ ও দ্বাদশ মুহুর্তের নাম মুখ্যকাল, অন্য সকল গৌণকাল। পৌষ মাসে যখন দিনমান অল্প হয়, তখন প্ৰচলিত পঞ্জিকাতেও সকল দিনে মুখ্যাকালে তিথির প্রাপ্তি হয় না, সুতরাং গৌণকাল লইয়া শ্ৰাদ্ধের বাবস্থা করিতে হয়। তিথির দশক্ষয় হইলেও ঐরূপ স্থলে গৌণকাল লইয়াই শ্ৰাদ্ধের ব্যবস্থা হইবে । অতএব দশক্ষায় হইলেও শ্রাদ্ধালোপের আশঙ্কা নাই । বরং প্ৰচলিত পঞ্জিকামতে নিত্যই শ্ৰাদ্ধালোপ श्रङ८छ, काब्र१ देशाऊ ख्रिशिांना ड्रल श७:ब्रांध्र कथन যথার্থ তিথির পূর্ব তিথিতে কখন পর তিথিতে কখন বা কাকতালীয় ন্যায়ে যথার্থ তিথিতেও শ্ৰাদ্ধ হইতেছে । কিন্তু পঞ্জিকা সংস্কার হইলে এরূপ। কখনই শ্ৰাদ্ধলোপ হইবে না । ৪ । চতুর্থ আপত্তি—আমাদের জ্যোতিষশাস্ত্ৰমতে সূৰ্য্য ভ্ৰমণ করে, কিন্তু যুরোপীয়দিগের মতে পৃথিবী ভ্ৰমণ । করে, এ জন্য যুরোপীয়দিগের গণনা গ্ৰাহ্য নহে। উত্তর-পৃথিবীর ভ্ৰমণই প্ৰাচীন সিদ্ধান্তকারদিগের অভিপ্ৰেত। পৃথিবীর ভ্ৰমণ স্বীকার করিয়াই তাহারা গ্ৰহভগণাদি নির্ণয় করিয়াছেন এবং সেই ভগণের আশ্ৰয়েই সকল প্রকার গণনা হইতেছে। বুধ ও শুক্রের পঠিত পাত্ত