প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অনাথবন্ধু.pdf/৬১২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


pring r Ynwr vrrer - 898 ন’দের কোন বিষয়ে কিছু অভাব ছিল না। তাহার গোলাDD DDS BDBDBD KDB S DBBDB DDD BDBDBS BBDBB তাহার পাওনাগণ্ডা কিছু কম ছিল না। বিশেষতঃ চাষীমহলে তাহার পাণ্ডিত্যের খাতি যথেষ্ট ছিল। সেই জন্য সাধারণ লোক তাহাকে যথেষ্ট ভক্তি করিত। ন’দের বিদ্যার বহর। কিন্তু অসাধারণ । সে কোন গতিকে বর্ণমালার অক্ষর কয়টির সহিত পরিচয় করিয়া সরস্বতীর সহিত সম্বন্ধ ছিন্ন করিয়াছিল। কোনমতে সে লক্ষ্মীপুজা যষ্ঠপূজার মন্ত্রগুলি অভ্যাস করিয়াছিল, আর গোটাকতক উদ্ভট শ্লোক কণ্ঠস্থ করিয়া তালে বেতালে তাহাই আবৃত্তি করিত। একবার ন’দে তাহার প্রতিবেশিনী জনৈক ব্ৰাহ্মণকন্যার কতকটা জমী কাড়িয়া লইয়াছিল। বিধবা লোকের কাছে কঁাদিয়া-কাটিয়া সেই কথা জানায় । গ্রামের মাতকাবর যখন আসিয়া ন'দেকে বলিল, “ঠাকুর । জমীটুকু ঐ বিধবা ব্ৰাহ্মণকন্যারই সত্য ।” তখন ন’দে তাহাকে নির্জনে বলিল, “বাপুহে! তা কি আর আমি জানি না ? তা খুব জানি । তবে জমীটি আমার দরকার। শাস্ত্ৰে বলে ন মাতা শ্বপতে পুত্ৰং ন দোষং লভতে মহী । অর্থাৎ কিনা, মারা শাপ পুত্রে লাগে না, উহা ছেলের পক্ষে আশীৰ্ব্বাদ হয়, আর মহী লাভ কবুলে দোষ হয় না। অর্থাৎ জমী নিলে পাপ হয় না, লাভ হয়। দেখ, এ সব বেদের কথা, সকলে উহা জানে না । আমার ঠাকুরদাদা কত বড় পণ্ডিত ছিলেন, তাহা জান ত ? তার কাছে আমার এই বিদ্যা শেখা ৷ আমি কি অশাস্ত্রীয় কাজ কৰ্ত্তে পারি ?” DBD DODDBBBY DuBDD DDBBDBDB DDDBB DDuS খানায় বসিয়া তাম্বুলচর্বণ করিতেছেন, এমন সময় সেই চাষীর দল কলরব করিতে করিতে তাহার বাড়ীতে উপস্থিত হইল। তাহারা তাহাকে সাষ্টাঙ্গে প্ৰণিপাত করিল এবং সমস্ত ব্যাপার বর্ণনা করিয়া কহিল, "ঠাকুর ! তোমাকে sLDDD S BDDS DBBDS BDD BB SDB DBS LLBD তাহাকে গাছতলায় আটকে রেখেছে।” কালিদাস পণ্ডিতের নাম শুনিয়া ন’দে ভট্টচাজের মুখ শুকাইয়া গেল। কিন্তু সে ও হার স্বাভাবিক প্ৰত্যুৎপন্ন অনাথবন্ধু। anaea alga a عدم [ প্ৰথম বর্ষ, মাঘ, ১৩২৩৷৷ মতিত্বের সাহায্যে বলিল, “বটে, বিচারে এক কথায় তাহাকে চুটিয়ে দিতে পারি। তবে কি জান, ইহাতে আমার অপমান ।” সকলে সমস্বরে জিজ্ঞাসিল, “কোন ঠাকুর ?” ন’দে উত্তর করিল, “সে পান্ধী চেপে এসেচে, আমি তাহার কাছে পায়ে হেঁটে গেলে আমার কি কম অপমান ?” OLL BB BDDtDD DD DBS SDuDD KD DBuDBBD KE আনিতে হইলে বিলম্ব ঘটে । অগত্য চাষীরা এক মাচানে ন’দে ভট্টচাজকে বসাইয়া তাহা কঁাধে করিয়া “হু হুম বেয়ারা” শব্দ করিয়া কালিদাসের সম্মুখে লইয়া উপস্থিত করিল । ব্যাপার দেখিয়া মহাকবি কালিদাসের আর বিস্ময়ের অবধি রহিল না । কালিদাস মহা সমাদরে ন’দে ভট্টচাজকে আহবান করিয়া তাতাকে জিজ্ঞাসা করিলেন, “কিস্তং ?” ন’দে তা জন-গর্জন করিয়া কহিল, “কি কস্তং ?- কস্তং খস্তং গন্তং-এত বড় কথা ?” কালিদাস আমনই কহিলেন, “বাপুসকল! তোমাদের ইনি মস্ত পণ্ডিত । ইহার নিকট আমি হারি মানিলাম। আমি একটা কথা বলিতে না বলিতে ইনি তিনটি কথা LBuD D DDDDD SS S S ukuD BBDBD BDBD BDDD BDS আমার বেয়াদপি, অতএব আমাকে ছাড়িয়া দাও।” তখন ন’দে ভটচাজ হাসিয়া বলিল, “বাপুহে ! তোমার পূর্বপক্ষ দেখিয়া বুঝিলাম, তোমার বেশ পড়াশুনা আছে । তুমি কালিদাস পণ্ডিতই বট ! তবে কিনা, এ সব বিদ্যা তোমরা কোথায় পাইবে ? ইহা আমার ঠাকুরদাদার কাছে Cat কালিদাস রেহাই পাইয়া হঁপ ছাড়িয়া বঁচিলেন । চাষী মহলে ন’দের মাহাত্ম্য শতগুণ বুদ্ধি পাইল । তাহারা তাহাকে কঁধে করিয়া মহাহির্ষে গ্ৰামাভিমুখে চলিয়া গেল । গল্পটি পুরাতন। কিন্তু আজকাল এই নদে ভট্টচাজের DD KrBDBB DBDDBDB DBBD DBBDD DBDDDLYS S E কোন শাস্ত্রের ধার ধারে না, কেৰ’ল “কস্তং খস্তং” বলিয়া পসার জমায়। পাঠক, এই সকল পণ্ডিত হইতে সাবধানে আত্মরক্ষা করবেন ।