পাতা:অনাথ আশ্রম - ক্ষীরোদপ্রসাদ বিদ্যাবিনোদ.pdf/৪৬৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সঞ্জয় ! নারায়ণ ওটা কেমন কথা কহিলেন ?” তখন সঞ্জয় নিজের ভ্রম বুঝিয়া, কথাটা সংশোধন করিয়া বলিয়াছিলেন, “নারায়ণ বলিলেন,- । “পরিত্রাণায় নারীনাং সমাজদিলনায় চ। . নারীদেহে ভৱং কৃত্বা সম্ভবমি কলৌযুগে ৷” সুখের পাঁচ মাস দেখিতে দেখিতে যেমন ! কাটিয়া যায়, তেমনি কাটিয়া গেল। এই পাঁচ । মাসের মধ্যে বালিকা কত হাসিল, কত কঁাদিল কত মাটি খাইল। মাতা তাহার মুখে একদিন ব্ৰহ্মাণ্ডই দেখিয়া ফেলিল। এইরূপ হাসিতে, কঁদিতে, মাটি খাইতে, ব্ৰহ্মাণ্ড দেখাইতে বালিকার। পাচ মাস কাটিয়া গেল। নামকরণিকা । । ষষ্ঠমাসে অন্নপ্রাশন ও নোলকধারণ। এই | ডুকরিয়া কঁদিয়া উঠিল। স্বর্ণলতার নাম হইল iएवं नश्, श्ल न। ধুতুরা' ! এ কাহারও { হইতে অজস্ৰ বচন চট্টরা নিপতিত হইতে লাগিল। অতি মুর্থেও বুঝিল, নামের প্রাণ বুঝি আর টেকে না । ] নামকরণের দিবস। চারি দিক হইতে কাতারে কাতারে লোক আসিতে লাগিল । । দুয়ের সঙ্গে চিরাগত প্রথানুসারে নামকরণও ; হইয়া থাকে। পুত্রবধূর সাতটি সন্তান একটি একটি করিয়া পুতনা-রাক্ষসী ও লিভার-রক্ষসের করাল কবলে নিপতিত হইয়াছে -পিতামহী । তাই বাবাঠাকুরের দ্বার ধরিয়াছিলেন। তিনি ভূমিষ্ঠমাত্রেই পৌত্রীর নাম রাখিয়াছিলেন, “বাবাদাসী৷”। মাতামহী অবশ্য এ নামে তুষ্ট হইলেন না। কিন্তু কি করেন, বৈবাহিকার 蜗 ·,,, S SS SS SS | উপকূল, প্রমদাগণের প্ৰেমাকর্ষণে সেন-ভবনে । সম্মানরক্ষার্থ অনেক বিবেচনা করিয়া, বাবা ঠাকুরের নাম পঞ্চানন্দে পরিবর্তন করতঃ এই | অষ্টম গর্ভের বাবাদাসীর নাম রাখিলেন, “পঞ্চ-- ননী” । কিন্তু এই উনবিংশ শতাব্দীর দিবা খাড়িল, গঙ্গাজল পেট ফুলাইল ; স্বর্গে দুন্দুভি বাজিল, মৰ্ত্তে ল্যাণ্ড । তখন । যশোদা রাখিল নাম “যাদু বাছা ধন” । । প্ৰমোদ রাখিল নাম ‘কুসুমকানন’ | | মামীম আসিয়া নাম থুইল “পারুল’ । ১২ মাসীমা থুইল নাম “লেভেনিয়া ফুল’ i; } মাসীমার ‘পাউডারী’ ছুটিয়া আসিয়া । । থুইল ‘মিঠাই” নাম বাছাই করিয়া ৷ বালিকার মুখ দেখে মাতুলের শালী । । আদর করিয়া নাম রাখিল দুলালী” । । মানিনী মোদক বি এ মুখে মধুভর। . মধুকল্প বাছা নাম দিল ‘মনোহরা" ॥ " কুঞ্জবালা নাগ এম এ কেতাব খুলিয়া। : সিলেক্ট করিয়া নাম দিল “অফিলিয়” । । কেহ বা নাম রাখিল ‘লবঙ্গলতা”, আবার । কেহ বা রাখিল কপির পাতা”। এইরূপ কত । লতা পাতা ফুল, কত ভৃঙ্গ-পাখীকুল, গিরি নদী। আসিয়া অনঙ্গ হইয়া নাম সাগরে ডুবিয়া গেল ! / | কত কুটুম্বিনী, কত গদান সম্পৰ্কীয়া কামিনীকুল । আসিয়া, মণ্ডলাকারে বালিকায় ঘেরিয়া বালি- " লোকে নাম-কুসুমকাননের ভিতর হইতে, একটা । কার গায় নামস্থা ঢালিয়া দিল। উড়,পোপম । টগর, আর একটা বক ফুল তুলিয়া আনা হইল । 'गांशंद्र श्रांत श्व ?. - কিন্তু কাননিক নাম রাখিল কে ? c কে ।