পাতা:অন্ধকূপ-হত্যা-রহস্য - মুজিবর রহমান.pdf/৭৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


“অন্ধকূপ-হত্যা”-রহস্য দেখেন নাই, কারণ ড্রেক যে লম্বা চওড়া সৈন্য তালিকা দিয়াছেন, তাহাতে মনে হয় তিনি সামরিক বিভাগের কাগজপত্র দেখিয়াই এইসব লিখিতে সক্ষম হইয়াছিলেন এবং সে কাগজপত্র তিনি কাহাকেও দেখাইতে দেন নাই বা তাহা যে তাহার নিকট ছিল তাহা কাহাকে জানিতেও দেন নাই। এইজন্য লােকে তাঁহার বিরুদ্ধে অনেক কিছুই বলিয়াছিল—ইহা আমরা টুকএর বর্ণনা হইতে জানিতে পারি। (৮২) এইরূপে পরামর্শ করিয়াই তঁাহারা সেস্থানে অন্ধকূপের বন্দী সংখ্যা নির্ধারণ করেন। | উইলিয়াম টুক ফলতা হইতে তাহার উপাখ্যান লিখিয়া গিয়াছেন। তাহার বর্ণনায় কিন্তু ১৪৭ জন বন্দীর কথা উল্লেখ আছে। তাহা থাকিবারই কথা, কারণ তিনি ডিসেম্বর মাসে এই উপাখ্যানটী লিখিতেছেন। এবং তিনি এই উপাখ্যান লিখিবার পূর্বে ড্রেক এর নিকট প্রেরিত ইয়ং সাহেবের পত্রখানি পড়িয়াছিলেন। (রেকর্ড নং ৩২) টুক স্বয়ং স্বীকার করিয়া গিয়াছেন যে তিনি সে পত্র পড়িয়াছেন (৮২) এই উপাখ্যান লেখার পূর্বেই হলওয়েল সাহেব ১১ই আগষ্ট তারিখে ফলতায় পৌহুছিআছেন। ইহা লিখিবার পূর্বে টুক নিশ্চয় হলওয়েলের সহিত এ বিষয় সম্বন্ধে আলােচনা করিয়া থাকিবেন। (৮৩)। এইসব রেকর্ডের মধ্যে ৩ খানি সেই তথাকথিত অন্ধকূপ হইতে জীবিত ব্যক্তিগণের মধ্যে ৩ জনের দ্বারা লিখিত হইয়াছিল। তাঁহার হলওয়েল, মিল ও কুক। মিএর ডায়েরীতে অন্ধকূপ হইতে জীবিত লােগণের যে তালিকা দেখিতে পাওয়া যায় তাহাতে মিলএর নাম আছে। হলওয়েলও ‘মিস’কে উক্ত ব্যক্তিগণের তালিকাভুক্ত করিতেছেন। কুঁকএর বর্ণনা হইতে জানিতে পারা যায় তিনিও অন্ধকূপে (৮) Hill: Vol I, p. 292. | (২) Hill: Vol I, p. 277. (৮৩) Hill : Vol i, pp. 198, 202, ।