পাতা:অষ্টাঙ্গ হৃদয় - বাগ্‌ভট.pdf/২১১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৩য় অঃ ] , শারীরস্থান । tసి আগ্নের উত্মা আগ্নেয় গুণকে, বায়ব্য উষ্মা বায়ব্য গুণকে এবং নাভস উন্মা নাভিস গুণকে পাক করিয়া থাকে। ইহা দ্বারা আহার যে স্বগুণে শরীরগত সমানগুণবিশিষ্ট ভাবসমূহের বন্ধনহেতু - এবং বিপরীত গুণান্বিতভাব সমূহের ক্ষয়হেতু তাহ প্ৰতিপন্ন হইল। সেই সকল পঞ্চমহাভূতাশ্ৰিত গুণ স্ব স্ব উন্মা দ্বারা পাক হইয়া দৃেহস্থ, পঞ্চমহাভূতগুণকে পৃথুর্কভাবে পুষ্ট করে। অর্থাৎ পার্থিব গুণ পাক হইয়া শরীরস্থ পার্থিব গুণকে, জলীয় গুণ পাক হইয়া জলীয় গুণকে বৰ্দ্ধিত করে ; এই নিয়মে অবশিষ্ট গুণ সকল, স্বস্ব গুণকে বৰ্দ্ধিত করিয়া থাকে ॥ ৫৮-৬০ * সেই পৰ্ক অন্ন কিট্ট ও সার এই দুই ভাগে পরিণত হয়। তন্মধ্যে অল্পের অচ্ছ (দ্রব্য) কিট্টকে মুত্র এবং ঘন কিট্টকে পুরী বলে ॥ ৬১ অল্পের সারা ভাগ অর্থাৎ প্রসাদাখ্য ভাগ' পুনৰ্বার’সপ্তপাত্বগ্নি দ্বারা পরিপাক ‘প্রাপ্ত হয়। (জঠর অগ্নি প্লঞ্চভূতাগ্নি ও সপ্তধাত্বগ্নি এই ত্ৰক্টোদশ প্রকার অগ্নি' ) ) } * , রস হইতে রক্ত, রক্ত হইতে মাংস, মাংস হইতে মেদ, মেদ হইতে অন্ত্রি, অস্থি হইতে মজ্জা, মজ্জা হইতে শুক্র, এবং শুক্র হইতে গর্ভের উৎপত্তি হয়৷ ৬২/৬৩ t রস ধাতুর মল কুফ, রক্তের মল পিত্ত, মাংসের মল-মল অর্থাৎ নাসিকাদিগত মিল, মেদের মল ধৰ্ম্ম, অস্থির মল, নখ ও রোম, মজ্জার মলও অক্ষিস্নেহ ত্বকন্নোহ ও পুৱীয। মোহ এবং শুক্রর মল ওজঃ ॥* ৬৪ কেবল যে ”অমুহারেরই প্ৰসাদ ও কিট্ট এই দ্বৈবিধ্য হয়,তাহা নহে। আহাররসাপ্যারিত ধাতু সমূহেল্পও প্রসাদ ও কিট্ট এই দ্বৈবিদ্য প্ৰদৰ্শিত হইতেছে-রসাদি প্লাতু সকলও পূর্বোক্ত প্রকারে ধাত্বগ্নি দ্বারা পুরিপাক হওয়ায় সার ও কিট্ট এই দুই ভাগি পরিণত হয়। পচ্যমান দুগ্ধের যেমন সার জন্মে সেইরূপ ধাতুরূপে পরিণত আহার রস ধাত্বগ্নিদ্বারা পুরু হওয়ায় প্রত্যেক ধাতুরই যথারূপ স্নেহ অর্থাৎ সার জন্মে, “পরস্পর উপশ্লেষ হেতু সেই ধাতুস্নেহ পরম্পূৰ্ব্বা উত্তরোত্তর শ্রেষ্ঠ। যেমন রসের সার রক্ত, রক্তের সার মাংস ইত্যাদি ॥ ৬৫৬৬ | কোন কোন আচাৰ্য বলেন যে, পাকক্রম (জাঠর অগ্নি ভূতাগ্নি ও ধাত্বগ্নি দ্বারা রসবুক্তাদি পারি।-- পাটাে পাক ) বীৰ্য্য ও প্রভাবাদি দ্বারা অন্ন (আহার রস) অহােরাত্রে শুক্রত্ব প্রাপ্ত হয়, কেহ কেহ বলেন ছয় দিনে; অপর আচাৰ্য্যগণ ৰূলেন যে একমাসে আহার রস শুক্ররূপে পরিণত হইয়া থাকে ॥৬৭ ভোজ্য ধাতু ਸ (ঘুৈ ধাতু হইতে যে, ধাতু উৎপন্ন হয় স্নেই পূৰ্ববৰ্ত্ত ধাতুকে পরবত্তী - ধাতুর ভোজ্য ধাতু খলে, যেমন-রক্তের ভোজ, রস) পরিবর্তন (গতি) চক্রবৃৎ নিয়ত ( অবিচ্ছিন্ন ভাবে ) হইয়া থাকে (আহার রসে পুনঃপুনঃ আঁপ্যায়িত কুওয়ায় ভোজ্য ধাতু পরবর্তী ধাতুরূপে পরিণত হইলেও ক্ষয় প্রাপ্ত হয় না ) ॥ ৬৮. দুগ্ধ মাংসুরস। মাষকলায় হংসাদি পক্ষির ডিম্ব প্রভৃতি বৃষ্যদ্রব্য সমূহ দুলক্ষ্ণ্যপ্রভাবে তৎক্ষণাৎ শুক্রাদি উৎপাদন করে। বৃষ্যদ্রব্য ব্যতীত চূর্ণ গুটিকাদি অন্য দীপন ঔষধও প্রায় অহােরাত্রে স্ব স্ব কৰ্ম্ম করিয়া থাকে। ৬৯/৭০ 霞 • আহার রস নিয়মমত রসধাতুর সহিত মিলিত হইয়া ক্ৰমশঃ রক্তে মাংসে শেষ শুক্রে পরিণত হয়, তাহা হইলে শরীরের কোনও স্থানে মাংস বৃদ্ধি কোনও স্থানে রসাদির জন্য পীড়া হয় কেন ? ইহার উত্তর-রসধাতু, বিক্ষেপূকরণশীল ব্যান বায়ু কর্তৃক সমস্ত দেহে নিরস্তর যুগপৎ প্রেরিত হয়,