পাতা:আজ কাল পরশুর গল্প.pdf/১১৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


क्यां थ* ब्र ७ डी क्रू ब्र ग (gां है বিশ্বাস কৈলাসকে সকলেই করে। লতাপাত ফুল আর রঙীন কাগজে সাজান পাট খড়ির প্রকাণ্ড মঞ্চের চেয়ে ছোট একটা কাঠের টুলের উপর মনুষের যেমন আস্থা থাকে উচ্ছসিত মমতা আর শুভকামনায় ভরপুর অনেক উদারচেতা-মহাপুরুষের চেয়ে স্বার্থপর কৈলাসকে সেইরকম বেশী নির্ভরযোগ্য মনে হয়। লটারীর টিকিটে बळे টাকা পাওয়া সম্ভব বটে কিন্তু পাঁচ টাকার নােটে পাঁচটা টাকা পাওয়া যাবেই। কৈলাসের কাছে কেউ কোনদিন বিশেষ কিছু আশা করে না। কিন্তু আমন তো হাজার হাজার লোক আছে যাদের কাছে কেউ কোনদিন কিছুই আশা করে না । জবরদস্তি আদায় করুক, দরকারের সময় পাঁচটা টাকাও তো সে দেয়। সব সময় নিজের সুখ সুবিধার কথা ভাবুক, অপরকে তার সুখ সুবিধা হতে বঞ্চিত করার চেষ্টা তো সে করে না । আবেলি তাবোেল কথা তো সে বলে না ; মানুষকে সে তো ঠকায় না। নিজের দায়িত্ব আর কৰ্ত্তব্য তো সে পালন করে। কারও মাথায় হাত বুলিয়ে আদর না করুক কারও পাও তো সে চাটে না। তবে লোকটা বড় স্বার্থপর, এই যা দোষ। একটু অভদ্রও বটে। সেদিন কেদারের বক্তৃতা শুনেই বোধ হয়। কৈলাসের মধ্যে পরের ভাল করার জন্য একটু আগ্ৰহ দেখা গেল। কয়েকদিন পরে সে নিজেই কেদারের বাড়ী গেল, সবিনয়ে বলল, “সেদিন ওদের সম্বন্ধে যা ৰলছিলেন, আমায় একটু বুঝিয়ে বলুন তো ঘোষাল মশায়। মনটা কেমন খুত খুত করছে সেদিন থেকে ’ । সতরঞ্চি বিছানো চৌকির উপর সে জেকে বসল, হেসে বলল, ) VO