পাতা:আজ কাল পরশুর গল্প.pdf/১৩৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


इां ध द भी कां क द्व মেরে দি। খিদেয় পেট চো চোঁ। কচ্ছে, মাইরি বলছি তোকে রঘু, কালীর দিব্যি। চ’ যাই চটপট । পৌছে দিলে তুইও খালাস। ওখানে খাবি তুই আজ। জানিস, আমার ওখানে খাবি ; খেয়ে দেয়ে ফিরিস, নয় শুয়ে থাকিবি।” ঘাড় হেঁট করে রাঘব বসে থাকে বেঁচেকায়, করুণ চেখের পলকে তাকিয়েই চোখ নামায়। ধরা গলায় বলে, “বাবুঠাকুর, এ কাপড় cभांठलद्ध 5ांझे ।' ‘কাপড় চাই ? আচ্ছা, আচ্ছা দেবখন তোকে একখানা—” গৌতম ঢোক গেলে, “একজোড়া কাপড় । নে দিকি নি, চল দিকি নি। এবার । , vež o রাঘব উঠে দাড়িয়ে হুমড়ি খেয়ে পড়ে গৌতমের পায়ে, দুহাতে দু’পা চেপে ধরে বলে, “আজ চলাচলি নাই বাবুঠাকুর। কাপড়গুলো মোদের দিয়ে তুমি যাও গে। দানছত্তর করে যাও বাবুঠাকুর কাপড়গুলো । মোদের ঘরে মেয়ে-বোঁ ন্যাংটাে হয়ে আছে গো।” গৌতমেয় ভয় করে। কিন্তু এদের সম্বন্ধে তার ভয় খুব অল্প, তাই মন তার ভয়ের সীমা পেরিয়ে যায়। ঝাঁকড়া চুল ধরে রাঘবকে টেনে তুলে গর্জন করে সে বলে, “হারামজাদা ! গাঁজাখোর ! বজাত ! ওঠ বলছি! মোট তোল! নন্দবাবুকে বলে তোকে জেল খাটাব ছ’মাস । ভৈরববাবুকে বলে তোকে চালা কেটে তুলে দেব দেশ থেকে। মোট তোল, পা চালিয়ে চল ৷” “মেয়েগুলো ন্যাংটাে বাবুঠাকুর ? মা-বুন ন্যাংটো, মেয়ে-বেী অ্যাংটো Qw9)S6