প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:আর্য্যদর্শন - দ্বিতীয় খণ্ড.pdf/২১৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


_ ভাদ্র ১২৮২ | দুর্গোৎসব । if २ ०१ নার ভাবে । গৃহধামে দুর্গোৎসবে এই অস্ত্রীয় স্বজনের মিলন ; অনুরূপ আত্মা ও সদৃশ হৃদয়ের মিলন। সমাজে বিরূপ ও বিসদৃশ আত্মা এবং হৃদয়ের মিলন ; গছে অম্বরূপ এবং সদৃশ হৃদয়ের সন্মিলন। সমাজে গ্রিকৃতিক ব্যক্তি, গৃহে একবিধ ব্যক্তিগণের মূলন। যে দুর্গোৎ সব উপলক্ষে সকলে এই মানব কি আমরা সহজে পরিত্যাগ করিতে পারি ? আমরা পরিত্যাগ করিলে কি হুইবে, আমাদিগের হৃদয় যে পরিত্যাগ করিতে চাহে না । মানবজাতীয় ভ্রাতৃভাব যে তাহাকে রক্ষা করিতে চাহে। দুর্গোৎসবের আনন্দ—দান ধৰ্ম্মে ও পান ভোজনে। মনের আনন্দ এখন মুক্ত হস্তে ও উদারতায় প্রকাশিত হয়। সহস্র দীন দাতব্য লাভ অথবা পানভোজন রিয়া দাতাকে আশীৰ্ব্বাদ করিয়া যাইতেছে, সে দৃশ্য কি মনোহর, কি হৃদয়-তৃপ্তিকর। আত্মীয়, স্বজন, কুটুম্ব, প্রতিবেশী সকলে একত্রে এক দিন মনের আনন্দে আহার ও পানভোজন করিলে কি হৃদয় পুলকিত হয় না, মানবসমাজের সুখবৃদ্ধি হয় না, এবং মানবজাতীয় একতার ভাব কি হৃদয়ে উদ্বোধিত হয় না ? দয়া ধৰ্ম্মে যে আনন্দ এবং স্বজাতির সহিত প্রণয় বন্ধনে যে আনন্দ, দুর্গোৎসবে সেই আন ন্দের স্রোত নগর ও গ্রামের সর্বত্র প্রবাহিত হইয়া সকলকেই স্বী করে। ...-----------سساسانیایسیسیستشتت تستست = حساسیمر জাতীয় ভাবে সম্মিলিত হয়, সে পৃর্গোৎসব আসুিfতছে, দুঃখী লোক পরিতোষের সহিত যেখানে, बैिंड शत्र हैनानैौख्न न्डन गडाडाब বৃদ্ধির সহিত দুর্গোৎসবের আনন্দ ক্রমশঃ স্থানকল্প হইয়া আসিতেছে। লোকসমাজ এখন কিছু স্বার্থপর, বিষয়ী এবং অর্থপ্রিয় হইয়া ক্রমশঃ সামাজিক আমোদ প্রমোদ ভুলিতে চাহে। বঙ্গদেশ যখন অধিকতর কৃষিব্যবসায়ী ছিল তখনকার কালে সামাজিক উৎসবের আনন্দ ১অধিকতর প্রতীয়মান হইত। তখনকার লোক তৃপ্তিপূৰ্ব্বক আহার করিত, গৃহ ধাম ধনধান্যে পরিপূর্ণ কীৰ্ত্ত-প্ররিলেই সুখী হইত, লোকেরও আশা ও অভাব অলপ ছিল, তখন সকলেই নির্ভাবনায় অধিকতর উচ্চরলে হাদিতে পারিত এবং জীবনস্রোত অনায়াসে বহিয়া যাইত। এখন সেকাল দিন দিন পরিবর্ত হইয় লেঞ্চ সমাজের আচার সাধহার o श्ंन। एनांश्-ि তেছে। লোকসমাজ জীবনযাত্রা নিৰ্ব্বাহের জন্য নানারূপ গণনা করিয়া চলিতেছে। ইউরোপীয় সভ্যতা কেবল আত্মমুখে ব্যস্ত । সেই সভ্যতা উদার হিন্দু সমাজ মধ্যে প্রবিষ্ট হইয়া জনসমা জকে নিতান্ত আত্মমুখতৎপর ও অর্থ লোলুপ করিয়াছে। মুখসেব্য সামাজিক সুখের পরিবর্তে এখন পাপময় পন্ধিল আমোদের স্রোত সমাজমধ্যে প্রবেশ করিয়াছে। লোকের এখন ধনগৰ্ব্ব জন্মিরছে। তখনকার আমোদ চণ্ডীমণ্ডপের আমোদছিল। এক্ষণে তৎপরিবর্তে বৈটক- | | খান" বিভবশালী - -تے