প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:আর্য্যদর্শন - দ্বিতীয় খণ্ড.pdf/৪৯৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ബ * 8q & আর্য্যদর্শন । মাঘ ১২৮২ | নিয়ম, তাহা মনেই বর্তমান থাকিবে। এবং সে নিয়ম এই, শরীরের আভ্যন্তরিক, পরমাণুসম্বন্ধীয় পরিবর্তন হেতু মনের কিছু বিপৰ্য্যয় ঘটে না, সেই অভ্যন্তরিক পরিবর্তনে শরীরের বরং বৃদ্ধি হয় এবং | তৎ সহকারে মনেরও স্কৃৰ্ত্তি হয়, এবং সেই আভ্যন্তরিক পরিবর্তনে দেহের শেষাবস্থায় যখন তাহ হ সি হইতে থাকে মনও তখন স্ফৰ্বি প্রাপ্ত না হইয়া ক্রমশঃ শক্তি-হীন হইতে থাকে। অতএব শারীরবিধানবিৎ সুধীবর্গের প্রতিপক্ষতা যে অতি ক্ষীণ ও দুৰ্ব্বল তাহা একটু ভাবিয়া দেখিলেই অনুভূত হইতে থাকে। পদার্থবিং দার্শনিক প্রিস্ট লী কহেন • যথনি আমরা দেখিতে পাই, কোন ব্যক্তির শিরো-ভঙ্গ হইয়াছে, এবং তৎসঙ্গে মস্তিষ্ক দেশ বিনষ্ট হইয়াছে, তখনি আমরা দে থিতে পাই অমনি তাহার চিন্তা এবং বিবেচনা শক্তিও তিরোহিত হইয়াছে। এতদর্শনে নিৰ্ব্বিরোধে কি এই সিদ্ধান্ত করা যাইতে পারে না যে মস্তিষ্ক দেশই মনের আবাস স্থান। এবং যখনি দেখিব কাহার চিন্তা এবং বিচার শক্তির ক্রটি ঘটয়াছে তখনি নিশ্চয় জানিব তৃহার মস্তিষ্ক দেশেরও কোন গোলযোগ হই য়াছে।” এতদ্ব্যতীত আমরা প্রত্যহই কি প্রত্যক্ষ করিতেছি না শরীরের সহিত মনের কতদূর ঘনিষ্ঠ সম্বন্ধ ? শরীর অসুস্থ (*) Priestley L. L. D, in his Disquisitions upon Matter and Spirit, published in 1777.

বিভক্ত হইয়াছেন। ও রোগগ্রস্থ হইলে মনও চঞ্চল এবং অধীর হইয় পড়ে। বাতুলের চিকিৎসা কি মস্তিষ্কের চিকিৎসা নহে? দৈহিক মুখ বোধ হইলে কি মনের প্রশাস্তি হয় না ? আমরা প্রত্যহই কাৰ্য্যকালে দেখিতে পাই শারীঞ্জি মুখ বিধানে মানসিক প্রফুল্লতা জন্সিতে থাকে। এ প্রকার অগণ্য দৃষ্টান্তে প্রতিপন্ন করে যে শরীরের সহিত মনের অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ সম্বন্ধ। ইহার পরস্পর পরম্পরের বেদনায় ব্যথিত হয়, এবং পরম্পরের সুখে সুখী হয় । এই ঘনিষ্ঠ সম্বন্ধ কিরূপে উৎপন্ন হইল, তাহার বিচার করিতে গিয়া দার্শনিক পণ্ডিতগণ দুই দলে যাহারা বলেন শরীর ও মন এ দুই স্বতন্ত্র ও পৃথক পদার্থ ছিল, কেবল ঈশ্বর ইহাদিগকে একত্রে সম্মিলিত করিয়া দিয়াছেন, তাহারা বলেন শরীর ও মনের যে সম্বন্ধ তাহ সেই ঈশ্বর কর্তৃক নির্দিষ্ট হইয়াছে ; ইহাদিগের এই রূপ যোগ স্থাপনা করিয়া দিয়াছেন, সুতরাং তাহার এইরূপ সম্বন্ধে পরস্পর নিবদ্ধ আছে। কিন্তু যাহারা বলেন শরীর হইতে মন উৎপন্ন, তাহারা এই সম্বন্ধকে আত্মপক্ষ সমর্থনার্থ একটি কোটি বলিয়া উল্লেখ করেন। প্রথমোক্ত পণ্ডিতগণ আরও বলেন দ্বিতীয় দলভূক্ত ব্যক্তিরা সম্বন্ধ মাত্রকে কারণ বলিয়া নির্দেশ করাতে একটি অপসিদ্ধান্তে | উপনীত হইয়াছেন। দ্বিতীয় দলস্থ । ব্যক্তিগণ উত্তর দেন, আমরা যে কার্ঘ্যের যে কারণ প্রত্যক্ষ দেখিতেছি অথাৎ ৷ -E=