পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (প্রথম বর্ষ).pdf/৪১৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


šio ፵፰.! ጵ.ቋቑ፴ቕዞ ̊ኳዏዏቈጥነነጿዛው ዲቝዱኝ፭”% $'* ( ;`ቫሖ...oኚ:- ̆"**ኒ፡ I' వ్లోవ్రెస్ట్రీ' حد 's.. Fኘ፥ : ዚ ኮ፩ `፡◊ . . . . . به: . . " : ::م. , : د* است. ' .. - , বর্ষাকালে ভগবান শাক্যমুনি যখন রাজগৃহ শৈলমালার সঙ্গিহীন শৈলশিখরে। পৰ্ব্বতগুহায় বাস করিতেছিলেন তখন বাসব জ্ঞানলিঙ্গা-প্রণোদিত হইয়া গুহাঘারে উপস্থিত হইয়াছিলেন ও বুদ্ধদেবকে কয়েকটি প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করিয়াছিলেন। ভূমিতে অক্ষরপাত করিয়া বুদ্ধদেব দেবরাজের প্রশ্নের উত্তর দিয়াছিলেন। প্ৰকৃত বিশ্বাসীরা কহিয়া থাকেন যে, অশ্বখণ্ডের উপরে ভগবানের অঙ্গুলী-চালনের চিহ্ন অস্থাপি বর্তমান আছে, বৌদ্ধ জগতে ইহারই নাম ইন্দ্রশিলাগুহা। যতক্ষণ পৰ্যন্ত ভগবান প্রশ্নের মীমাংসা করিতেছিলেন ততক্ষণ পঞ্চশিখ বীণা সংযোগে সঙ্গীতধ্বনি করিতেছিলেন। অপর স্তন্তে মৃগজাতকীয় চিত্ৰ। বৃত্তমধ্যে তিনটি বৃক্ষ; দক্ষিণপার্থে পলায়নপর মৃগযুথ, মধ্যদেশে গৰ্ত্তমধ্যে পতিত একটি বৃহৎ মৃগ ও গৰ্ত্তের পার্থে স্তুতিশীল মনুষ্যত্রয়, বামপাশ্বে জনৈক মনুষ্য মৃগযুথর প্রতি শরত্যাগ করিতেছে। কথিত আছে, কোন এক পূৰ্ব্বজন্মে ভগবান শাক্যমুনি মৃগযুথপতি ছিলেন। একদা জনৈক ব্যাধ মৃগকুলতাড়না করিলে একটি গর্ভবতী মৃগী পলাস্বনে অক্ষম হইয়া যুথপতিকে সম্বোধন করিয়া কহে “আমি পলায়নে অক্ষম ও আমি নিহত হইলে, আমার গর্ভস্থ দ্রুণ পৰ্যন্ত নিহত হইবে।” ইতিমধ্যে ধাবমান যুথের সম্মুখে একটি গৰ্ত্ত দেখিয়া হরিণী পলায়নে বিরত হইল। যুথপতি গর্ভের মধ্যে লক্ষ প্ৰদান করিয়া হরিণীকে কহিলেন “তুমি আমার পৃষ্ঠে পাদনিবেশ করিয়া গৰ্ত্ত পার হইয়া যাও ।” তখন অপর সকলে লম্ফ প্ৰদানে গৰ্ত্ত পার হইয়া গিয়াছে। পরীক্ষণেই ব্যাধ-নিক্ষিপ্ত শরে আহত হইয়া যুথপতি প্ৰাণত্যাগ করিলেন। অপর স্তম্ভে নাগাজাতক, একটি সরোবরতীরে তিনটি হস্তী দণ্ডায়মান। তন্মধ্যে একটি কুলীরক কর্তৃক আক্রান্ত হইয়াছে। কথিত আছে, বনমধ্যে । এক বিশাল সরোবরে একটি অতি বৃহৎ কুলীরিক বাস করিত । হস্তিগণ জলপানের জন্য সরোবরে আসিলে দশরথরাজ কোন একটির পদ দৃঢ় রূপে আমরণকাল পৰ্য্যন্ত ধারণ করিয়া থাকিতেন। হস্তীর মৃত্যু হইলে কিয়ৎ কাল পৰ্য্যন্ত তিনি আহার পাইতেন। পরে বোধিসত্ত্ব হস্তিনীগর্ভে জন্ম- ৫ গ্ৰহণ করিয়া কুলীরকের ব্যবহার শুনিলেন। একদা তিনি পিতার অনুমতি লইয়া সরোবরে গমন করিলেন। কুলীরক র্তাহাকে আক্রমণ করিল ও পরে তাহার পত্নীর অনুরোধে দয়ার্ড হইরা তঁহাকে পরিত্যাগ করিল। তঁহাকে পরিত্যাগ করিবামাত্র তঁাহার পাদপেষণে কুলীরক বিনষ্ট হইল। অপর স্থানে ছদন্তজাতিক অঙ্কিত আছে। কথিত আছে, হিমালয়ের নিকটবৰ্ত্তী ছন্দস্তষ্কদের সান্নিধ্যে অষ্ট সহস্ৰ ষড়দন্ত হস্তী বাস করিত। বোধিসত্ব এক