পাতা:ঐতিহাসিক চিত্র (তৃতীয় বর্ষ) - নিখিলনাথ রায়.pdf/১৪৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


"?vy । कैठिहानिक द्धि। (৫) একত্র অনেকগুলি হল বর্ণের প্রয়োগ নাই। অর্থাৎ একত্ৰ বহু -হলবৰ্ণ লিখিত হইত না ( যাথা-উজ্জ্বল ) । । আপনারা দেখিবেন যে, ইহার বর্ণ বিন্যাস পদ্ধতি অতিশয় অসম্পূর্ণ। বর্ণ rBBDBD DD DTDuBuBDBD S DD D BBS BBD DBDDB BB DD DBDB DDBD BBLSS BD DBSBYSLDBB YYS guB BBBD S DDD DDD DBD DDD এইরূপে লিখিত হইত। প্রত্যেক হ’লবৰ্ণে অন্য স্বর সংযুক্ত না থাকিলেও আকার সংযুক্ত আছেই। এই শাক্য স্থূপের সময়ে স্বরবর্ণের ( vowels) হ্রস্ব D 0YYDB DDD DDD SS DBYBDB BBB DBuuBD DBS DBBDB DBi uDuDuBD DBBB কোন লিখিত সঙ্গেত আবিষ্কৃত হয় নাই। এই সকল অভাব এবং যুক্ত হল বর্ণের লিখন-প্ৰণালীর অভাব বশতঃ উচ্চারিত ভাষাকে সম্যক রূপে লিখিয়া প্ৰকাশ করা অতীব কঠিন ছিল। ভারতীয় লিপিমালার এতৎ। পরবর্তী অবস্থাতেই অশোক লিপি। ১৮৮৬ খৃষ্টাব্দের পূর্বে যে ৩৪টি অশোক লিপি আবিস্কৃত হয়, তাহার বিস্তৃত বিবরণ M. Srinarat state fig wit: first fift sig ( Inscriptions dePiyadasi ) লিপিবদ্ধ করিয়াছেন। ইহাদের সাহায্যেই ভরতন্তুপের অধিকাংশ লিপির তুলনা করতে হইবে। অশোক লিপি হইতে ভরত স্তুপের কতকগুলি লিপি প্রাচীন, কতক গুলি নূতন এবং একখানি কি দুই খানি লিপি অশোক शिलिश दछ काल श्रद्ध (शानिड श्म । তৃতীয় খৃষ্টাব্দের এই লিপি সমূহের দুইটী লিপির দুইটী বিষয় অতি উল্লেখ যোগা। পথম বৰ্ণবিন্যাস পদ্ধতি অনেকাংশে উন্নত। স্বরবর্ণের বিশেষত্ব এই যে, দীর্ঘস্বরের চিহ্ন ব্যবহৃত হইতে আরম্ভ হইয়াছে এবং একবার যুক্ত স্বরও দেখিতে পাওয়া যায়। যুক্ত এবং একাধিক হ’লবৰ্ণ একত্রে লিখিত হইবার প্ৰথা প্ৰবৰ্ত্তিত হইয়াছে। মোটের উপর অক্ষর মালা পরিষ্কার ভাবে রীত্যনুযায়ী খোদিত হইয়াছে, তজ্জন্য অক্ষর গুলি অধিকতর অভ্রান্ত এবং সম্পূর্ণ স্বয় eftstry ( phonetic) earce