পাতা:ঐতিহাসিক চিত্র (তৃতীয় বর্ষ) - নিখিলনাথ রায়.pdf/২৮১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


cबीठांकूब्रांौद्ध शछे । RNO মার ইচ্ছা হলে তাই হবে, তবে এখন আমায় বিদায় দিন।” } : “এস মা এস” বলিয়া রাজমাতা অশ্রুপূর্ণনয়নে বিন্দুমতীর মন্তকে হাত দিয়া আশীৰ্ব্বাদ করিলেন। বিন্দু ধীরে ধীরে শিবিকারোহণে রাজবাটী হইতে নিচুক্লান্ত হইয়া বজরায় উঠিলেন ও বজরা ভাসাইতে আদেশ দিলেন। মাধবমল্ল কহিল,- “ “ম বজরা কোথায় "কাশীতে।”

  • ८कन भा” ? “পরে জানিতে পরিবে ।” প্ৰতাপের অনুচর মাধবমল্ল বিন্দুমতীর ভাব দেখিয়া মনে করিয়াছিল যে, রামচন্দ্ৰ নিশ্চয়ই তাহার সহিত দুর্ব্যবহার করিয়াছেন। সেইজন্য সে বলিল, “আমাকে না বলিলে বজরা ভাসাইব না।” s

‘द्धांभि (qथन किछू दलित ना।” “আপনি না বলুন আমি বুঝিয়াছি। কে আছ, এখনই বন্দুক লইয়া রাজবাটী চল, রামচন্দ্র রায়কে বাধিয়া আনিতে হইবে।” “মাধবমল্ল, তোমার এত বড় স্পদ্ধা ! তুমি বাকলারাজমহিষীর সম্মুখে BDBD DBDDBDBD BDBBB uBBDBD DS DBD BDBDD DDD DBBD DtD its ' SS DDDBD DBD DBBD DDBD S BBBDDB BBBBDB DDD DBBDS “মাঝি, তোমরা এখনই বজরা ছাড়িয়া দেও, কাশী যাইতে হইবে।” “যে আজ্ঞা” বলিয়া মাঝিরা বজরা ছাড়িয়া দিল। বজরা ও নৌকা বাকলা পরিত্যাগ করিয়া কাশীর দিকে অগ্রসর হইল । আমরা পুর্বে বলিয়াছি যে প্রতাপাদিত্য রামচন্ত্রের বধের ইচ্ছা করিলে বিন্দুমতী তাঁহাকে সেই সংবাদ দেন ও তাহার সেনাপতি রামনারায়ণ মল্পের সাহায্যে রামচন্দ্ৰ যশোর হইতে পলায়ন করিয়া আত্মরক্ষা করেন। যে সময়ে বিন্দুমতী বাকলায় আসেন, সে সময়ে রামনারায়ণ কোন কাৰ্যোপলক্ষে