পাতা:ঐতিহাসিক চিত্র (তৃতীয় বর্ষ) - নিখিলনাথ রায়.pdf/২৮৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


r 6योॉक्वांगैब्रis। રહદ অগ্রসর হইলেন। তঁহাদের সহিত কয়েকজন পুরুষ ও স্ত্রী আসিয়া যোগ দিল । রামনারায়ণও পশ্চাৎ পশ্চাৎ চলিতে লাগিলেন। রামনারায়ণ বীরপুরুষ, চিরদিন আসি বন্দুক লইয়াই দিন কাটাইয়াছেন । ধৰ্ম্ম বা ভক্তির অনুষ্ঠানের কখনও অবকাশ পান নাই। ধৰ্ম্মক্ষেত্ৰ কাশীধামে আসিয়া চারিদিকে ধৰ্ম্মশ্ৰোত প্ৰবাহিত দেখিয়া তিনি যেন কেমন কেমন হইয়া গেলেন। যদিও তিনি বিন্দুমতীর অনুসরণ করিতেছিলেন, তথাপি তঁহার মন যেন আর কোথায় চলিয়া যাইতেছিল। অন্নপূর্ণ বিশ্বেশ্বরের মন্দিরের নিকটে উপস্থিত হইলে, তিনি শুনিলেন একজন বাঙ্গালী ভিখারী গান করিতেছে,- “এ পাষাণ চিতে, শুধু চারি ভিতে, ধু ধু করে মরু ভাবি নিরবধি । দুৰ্গানামের বলে, কঠিন পাষাণ গলে, মরুভূমে বহে স্বরাগের নদী। তাই প্ৰাণ খুলি, দুর্গা দুর্গা বলি, YY DSBD BDB BDD DDD ভক্তিমন্দাকিনী, বহুক আমনি, দুর্গাপদবিম্ব হেরি নয়ন মুদি ।” গান শুনিয়া রামনারায়ণ অজ্ঞাতভাবে “দুৰ্গা দুৰ্গা” বলিয়া উঠিলেন, এবঃযেন আত্মহারা হইয়া গেলেন। মনে মনে বলিতে লাগিলেন, “আর দেশে ফিরিব না, এখানেই থাকিয়া যাইব ।” a অল্পক্ষিণ পরে তিনি সংজ্ঞা লাভ করিয়া দেখিলেন, বিন্দুমতী, তাহার সঙ্গিনীগণ ও লোকজন কোথায় চলিয়া গিয়াছে। রামনারায়ণ ত্বরিতাপদে বিশ্বেশ্বয়ের মন্দির প্রাঙ্গণে প্ৰবেশ করিলেন । DDLBDBBD DB DBDtD DuuDu BDBuSYDYDD S DBBD DBD জনকে, কারণ, তখন আরঙ্গজেবের জন্ম হয় নাই। যে মন্দির ভাঙ্গিয়া আরঙ্গজেৰ মসজীদ, গড়িয়াছিল, আমরা সেই মন্দিরেরই কথা বলিতেছি । মন্দিরপ্ৰাদণে প্ৰবেশ করিয়া রামনারায়ণ দেখিলেন, দুর্ভেদ্য প্রাচীরবৎ লোকসকল ।