পাতা:কাব্যগ্রন্থ (পঞ্চম খণ্ড).pdf/৩১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চরণের আভা ।—বিস্ময়ের নাই সীমা । সেই যেন প্রথম দেখিল আপনারে। শ্বেত শতদল যেন কোরক বয়স যাপিল নয়ন মুদি’,—যেদিন প্রভাতে প্রথম লভিল পূর্ণ শোভা, সেইদিন হেলাইয়া গ্রীবা, নীল সরোবরজলে প্রথম হেরিল আপনারে, সারাদিন রহিল চাহিয়া সবিস্ময়ে। ক্ষণপরে, কি জানি কি দুখে, হাসি মিলাইল মুখে, স্নান হ’ল দুটি আঁখি ; বাধিয়া তুলিল কেশপাশ ; অঞ্চলে ঢাকিল দেহখানি ; নিশ্বাস ফেলিয়া, ধীরে ধীরে চলে গেল ; সোনার সায়াহ্ন যথা স্নান মুখ করি’ আঁধার রজনীপানে ধায় মৃতৃপদে । ভাবিলাম মনে, ধরণী দেখায়ে দিল ঐশ্বৰ্য্য আপন। কামনার সম্পূর্ণতা ক্ষণতরে দেখা দিয়ে গেল –ভাবিলাম কত যুদ্ধ, কত হিংসা, কত আড়ম্বর, পুরুষের পৌরুষগৌরব, বীরত্বের নিত্য কীৰ্ত্তিতৃষা, শান্ত হয়ে লুটাইয়া እ» ጫ চিত্রাঙ্গদা