পাতা:কাব্যগ্রন্থ (সপ্তম খণ্ড).pdf/৯৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নৈবেদ্য ○ ミ দুগম পথের প্রান্তে পান্থশালা পরে যাহারা পড়িয়া ছিল ভাবাবেশ ভরে, রসপনে হতজ্ঞান ; যাহারা নিয়ত রাখে নাই আপনারে উদ্যত জাগ্রত,— মুগ্ধ মূঢ় জানে নাই বিশ্বযাত্ৰিদলে কখন চলিয়া গেছে সুদূর অচলে বাজায়ে বিজয়শঙ্খ । শুধু দীর্ঘ বেলা তোমারে খেলনা করি’ করিয়াছে খেলা ; কৰ্ম্মেরে করেছে পঙ্গু নিরর্থ আচারে, জ্ঞানেরে করেছে হত শাস্ত্রকারাগারে, আপন কক্ষের মাঝে বৃহৎ ভুবন করেছে সঙ্কীর্ণ, রুধি’ দ্বার-বাতায়ন— তা’রা আজ কাদিতেছে । আসিয়াছে নিশা, কোথা যাত্রী, কোথা পথ, কোথায় রে দিশা । 어